চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

পাবলিক ফিগারদের হয়রানি রোধে কাজ করবে ফেসবুক প্রটেক্ট

পাবলিক ফিগারদের (বহুপরিচিত ব্যক্তি) লক্ষ্য করে গণ হয়রানি এবং আক্রমণের বিরুদ্ধে সুরক্ষা বাড়াতে নতুন ফিচার চালু করেছে ফেসবুক। নতুন এই ফিচারটির নাম ফেসবুক প্রটেক্ট।

ফেসবুকের ওয়েবসাইটে বলা হয়েছে, বেশ কিছু অ্যাকাউন্টকে বাড়তি নিরাপত্তা দিতে কাজ করবে ফেসবুক প্রোটেক্ট।

এটি একটি ভলানটারি (ঐচ্ছিক) প্রোগ্রাম যা নির্বাচনী প্রার্থী, তাদের প্রচারণা এবং নির্বাচিত প্রতিনিধিদের অ্যাকাউন্টকেও বাড়তি সুরক্ষা দেবে। অ্যাক্টিভিস্ট এবং সাংবাদিকদেরকে পাবলিক ফিগার হিসেবে গণনা করে তাদের সুরক্ষার কথাও বলা হয়েছে নতুন ফিচারে।

প্রাথমিকভাবে যুক্তরাষ্ট্র ও জার্মানির নির্বাচনের সময় সেখানকার প্রার্থীদের ফেসবুক ও ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টের সুরক্ষায় এই প্রোগ্রামটি তৈরি করা হয়েছিল। পরে এই ফিচারটি কানাডাতেও চালু করা হয়। ২০২১ সালে এটি বিশ্বের অন্যান্য দেশের জন্য সরবরাহ করা হবে বলেও জানায় তারা।

বিজ্ঞাপন

নতুন ফিচারটির বিষয়ে সকল আপডেট ফেসবুকের মাধ্যমেই জানানো হবে বলে জানিয়েছে ফেসবুক।

এক বার্তায় ফেসবুক বলছে, কিছু কিছু অ্যাকাউন্ট অনেক মানুষের কাছে পৌঁছানোর সম্ভাবনা রয়েছে। হ্যাকাররা সব সময় সেই অ্যাকাউন্টগুলোর প্রতি আগ্রহী হয়, যেগুলোর অনেক বেশি ফলোয়ার থাকে, যেগুলো গুরুত্বপূর্ণ পেজ পরিচালনা করে কিংবা যার কমিউনিটি সিগনিফিক্যান্স বা গুরুত্ব রয়েছে। সেই সব অ্যাকাউন্টের উপর উদ্দেশ্যপূর্ণ হামলা রোধ করতেই উন্নত নিরাপত্তার এই প্রোগ্রামটি চালু করার অনুরোধ করেছে ফেসবুক।

নতুন এই ফিচারটির আওতায় ফেসবুকে লগ ইনের ক্ষেত্রে আরো কঠোর নিয়মাবলী আরোপ করা হবে যেন অনুমোদনহীন কেউ সেসব অ্যাকাউন্টে প্রবেশ করতে না পারে। তাছাড়া ফেসবুক যদি ওই সব অ্যাকাউন্টে অনাকাঙ্ক্ষিত কোন লগ ইন শনাক্ত করে, তাহলে সেটি অ্যাকাউন্টধারীর কিনা সেটা নিশ্চিত করতে কয়েকটি বাড়তি ধাপ পেরুতে হবে।

ফেসবুক বলছে, ফেসবুক প্রোটেক্ট ফিচার চালু করা থাকলে নিরাপত্তা পদক্ষেপ গ্রহণে আরো ভাল করতে কাজ করবে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ। ফলে অ্যাকাউন্টের ব্যাকগ্রাউন্ডে কিছু পরিবর্তন আসতে পারে। তাছাড়া ফেসবুক কোন নতুন সিকিউরিটি প্রোগ্রাম চালু করলে সেটি অ্যাকাউন্টধারীকে জানানো হবে যেন তিনি অন্যদের তুলনায় আগে সেটির সুবিধা পান।

ফেসবুকের ওয়েবসাইটে জানানো হয় যে, যারা এই ফিচারটি চালু করতে পারবেন তারা ফেসবুকের মাধ্যমেই এটি জানতে পারবেন। যারা এর আওতায় পড়বেন তারা ফেসবুকের সেটিংসে গিয়ে সিকিউরিটি অ্যান্ড লগ-ইন অপশনে গেলে ফেসবুক প্রোটেক্ট নামে অপশন পাওয়া যাবে। সেখান থেকে ফেসবুক প্রোটেক্ট অপশন অন করা যাবে।

বিজ্ঞাপন