চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

দেশের মানুষের কল্যাণে জীবন দিতে হলে তাও দিয়ে যাবো: প্রধানমন্ত্রী

দেশের মানুষের জন্য নিজের জীবন উৎসর্গ করেছেন মন্তব্য করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন: বাংলাদেশের মানুষের জন্য আমি আমরার জীবনকে উৎসর্গ করেছি। এ দেশের মানুষের কল্যাণে যা যা করার আছে আমি করবো। এজন্য বাবার মতো জীবন দিতে হলে তাও দিয়ে যাবো।

বুধবার জাতীয় সংসদে প্রধানমন্ত্রীর জন্য নির্ধারিত প্রশ্নোত্তর পর্বে ময়মনসিংহ-৯ সংসদীয় আসনের সাংসদ আনোয়ারুল আবেদীন খানের এক সম্পূরক প্রশ্নের জবাবে তিনি একথা বলেন।

বিজ্ঞাপন

আনোয়ার তার প্রশ্নে বলেন: মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আপনি বলবেন কি এখন পর্যন্ত বাংলাদেশে যা যা হচ্ছে তা আপনার পূর্বের দেখা স্বপ্নের অংশ। যা এখন ক্রমান্বয়ে বাস্তবায়ন হচ্ছে। আগামীতে বাংলাদেশেকে আরও কী কী দেয়ার পরিকল্পনা আপনার আছে?

বিজ্ঞাপন

প্রশ্নের উত্তরে প্রধানমন্ত্রী বলেন: বাংলাদেশের মানুষের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের জন্য যা যা করণীয় তা আমরা করে যাচ্ছি এবং করে যাবো। এমন একটা সময় ছিলো যখন মানুষ এক বেলা খেতে পেত না, এটা খুব বেশিদিন আগের কথা নয়। ১০-১১ বছর আগের কথাটিই আপনারা চিন্তা করুন তখন দেশের অবস্থা কী ছিলো, এখন আর সে অবস্থা নাই। মাননীয় স্পিকার আপনি জানেন সম্প্রতি ২৩টা উপজেলায় ভিডিও কনফারেন্সিংয়ের মাধ্যমে বিদ্যুৎ সরবরাহের উদ্বোবধন আমরা করলাম এবং ৭টি নতুন বিদ্যুৎ কেন্দ্র আমরা করলাম।

তিনি আরও বলেন: সেখানে একটি উপজেলা একদম দুর্গম এলাকা, সেখানকার এক বোন বললেন তার গ্রামে তিনি বিউটিফিকেশনের কাজ করেন। এই বিদ্যুৎ পৌঁছে গেছে বলে তার কাজ আরও সহায়ক হবে। মাননীয় স্পিকার আপনি চিন্তা করেন, গত এক দশকে মানুষেয় জীবন যাত্রার কতোটা পরিবর্তন ঘটেছে।

প্রধানমন্ত্রী যোগ করেন: একটা ইউনিয়নে সেখানেও বিউটিফিকেশনের কাজ হয়। একটি মেয়ে সেই কাজ করে তার খাবার মতো উপার্জন করছে। আমাদের গৃহিত পদক্ষেপের সুফলটা যে গ্রামগঞ্জে পৌঁছে গেছে। সেটাই হচ্ছে বড় কথা।

বাংলাদেশের মানুষের জন্য সামনে আর কী করার পরিকল্পনা আছে জানাতে গিয়ে বঙ্গবন্ধু কন্যা বলেন: আর কী কী দেবার আছে জানি না। এটুকু বলতে পারি আমার জীবনটাকে আমি উৎসর্গ করেছি বাংলাদেশের মানুষের জন্য। বাংলাদেশের মানুষের কল্যাণে আমার যা যা করার আছে আমি সেটা করবো। এজন্য বাবার মতো জীবনও যদি দিতে হয় তাও দিয়ে যাবো।

Bellow Post-Green View