চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

দণ্ডিত-পলাতক আসামির বক্তব্য প্রচারে নিষেধাজ্ঞা

গণমাধ্যম ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে দণ্ডিত এবং পলাতক আসামির বক্তব্য  প্রচার-প্রকাশে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছেন হাইকোর্ট।

সম্প্রতি বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেল ‘৭১ টিভি’তে পলাতক আসামি পিকে হালদারের বক্তব্য প্রচারের বিষয়টি দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) পক্ষ থেকে আদালতের নজরে আনলে বুধবার বিচারপতি মো.নজরুল ইসলাম তালুকদার ও বিচারপতি আহমেদ সোহেলের ভার্চুয়াল হাইকোর্ট বেঞ্চ এই আদেশ দেন।

বিজ্ঞাপন

এছাড়াও গত সোমবার পিকে হালদারকে ভিডিও কনফারেন্সে সংযুক্ত করে প্রচারিত অনুষ্ঠানের ভিডিও ফুটেজ আগামী ১০ জানুয়ারির মধ্যে হাইকোর্টের রেজিস্ট্রারের মাধ্যমে হাইকোর্টে পাঠাতে ৭১ টিভি কর্তৃপক্ষের প্রতি নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

এ বিষয়ে পরবর্তী আদেশের জন্য আগামী ১০  জানুয়ারিই দিন ধার্য করেছেন হাইকোর্ট। আজ আদালতে দুদকের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী খুরশীদ আলম খান। আর রাষ্ট্রপক্ষে শুনানি করেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল এ কে এম আমিনউদ্দিন মানিক।

এর আগে দেশের বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদে বলা হয় পিকে হালদার জালিয়াতির মাধ্যমে ইন্টারন্যাশনাল লিজিং থেকে নামে-বেনামে কয়েক হাজার কোটি টাকা আত্মসাৎ করেন। এ কারণে ইন্টারন্যাশনাল লিজিং তার গ্রাহকের আমানতের টাকা ফেরত দিতে অপারগতা প্রকাশ করে। এরই মধ্যে গোপনে দেশ ছাড়েন হালদার।

পরবর্তীতে জানা যায়, শুধু ইন্টারন্যাশনাল লিজিংই নয়, দেশের আরও কয়েকটি আর্থিক প্রতিষ্ঠান পিকে হালদারের কারণে দেউলিয়া হতে বসেছে। এমন বাস্তবতায় নিজেদের টাকা ফেরত পেতে ইন্টারন্যাশনাল লিজিংয়ের একাধিক গ্রাহক আদালতের শরণাপন্ন হন।

এক পর্যায়ে পিকে হালদারকে দেশে ফিরিয়ে আনা ও গ্রেপ্তারে কী পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে তা জানতে চেয়ে আদেশ দেন হাইকোর্ট।