চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ট্যাংক ফেটে রাশিয়ায় নদীতে হাজার হাজার টন তেল

জরুরি অবস্থা ঘোষণা

Nagod
Bkash July

রাশিয়ার সাইবেরিয়ার সুমেরীয় অঞ্চলের নরিলক্সে একটি জ্বালানি তেলের ট্যাংক ফেটে নদীতে ২০ হাজার টন তেল ছড়িয়ে পড়ায় ওই অঞ্চলে জরুরি অবস্থা জারি করেছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন।

Reneta June

গত শুক্রবার স্থানীয় এক পাওয়ার স্টেশনে ঘটনাটি ঘটলেও রাশিয়ার কর্মকর্তারা জানতে পেরেছেন তারও দুইদিন পর।

ওই ঘটনায় পাওয়ার স্টেশনের পরিচালককে আটক করা হয়েছে। তাকে ৩১ জুলাই পর্যন্ত আটকে রাখা হবে। তবে তার বিরুদ্ধে এখনো কোনো অভিযোগ গঠন করা হয়নি।

ঘটনা ঘটার দুই দিন পরে জানানোর জন্য তাদের বিরুদ্ধে ক্রিমিনাল মামলা শুরু করতে যাচ্ছে রাশিয়ার তদন্ত কমিটি।

ঘটনা দ্রুত তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট পুতিন।

জানা গেছে, থার্মাল পাওয়ার স্টেশনেটি রাশিয়ার উত্তরাংশের একটি বিচ্ছিন্ন শহর নরিলক্স এ অবস্থিত। নরিলক্স ওই পাওয়ার স্টেশন নিকেল খনি ব্যবসার সঙ্গে যুক্ত।

এই কোম্পানির ট্যাঙ্ক ফেটে এই ভয়াবহ ঘটনা ঘটেছে, যেখানে প্রায় ২০ হাজার টন তেল ছিল।

দেশটির রাষ্টীয় সংবাদ মাধ্যমে বলা হয়, তেল ইতিমধ্যে প্রায় ৩৫০ বর্গ কিলোমিটার এলাকায় ছড়িয়ে পড়েছে।

কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, বেশিরভাগ তেলই নিকটবর্তী নদীতে ভেসে গেছে এবং বাকিটা মিশে গিয়েছে তাইমিরস্কি ডলগ্যানোর জেলার রিসার্ভারে।

ওপর থেকে তোলা কিছু ভিডিও এবং ছবিতে দেখা গেছে আমবারনয়া এবং দাদিকান নদীর বিশাল অংশ লাল হয়ে গেছে। দূষণ এতটাই বেশি যে গুগল ম্যাপে এবং ইয়ান্ডেক্স ম্যাপের স্যাটেলাইট ইমেজেও তা স্পষ্ট বোঝা যাচ্ছে।

পরিবেশবিদরা সতর্ক করছেন, ওই অঞ্চলে দীর্ঘমেয়াদি ক্ষতি হতে পারে।

প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বুধবার এক ভিডিও বার্তায় জরুরি অবস্থা ঘোষণার পাশাপাশি দ্রুত পদক্ষেপ না নেওয়ার জন্য স্থানীয় প্রশাসনের তীব্র সমালোচনা করেছেন।

জরুরি অবস্থা জারির অর্থ হচ্ছে পড়ে যাওয়া ডিজেল পরিষ্কারে বাড়তি গুরুত্ব দেয়া হবে। প্রয়োজনে বাড়িতে সেনা মোতায়েন করা হবে।

BSH
Bellow Post-Green View