চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

চ্যানেল আই’র নজরুল মেলায় শাহীন সামাদ

সোমবার জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের ১১৬তম জয়ন্তী। এ উপলক্ষে চ্যানেল আই প্রাঙ্গণে বসবে ‘নজরুল মেলা’।

রোববার রাতে প্রস্তুতি দেখতে এসে বিশিষ্ট নজরুল সঙ্গীত শিল্পী শাহীন সামাদ নতুন প্রজন্মের মধ্যে নজরুল সঙ্গীত শেখার প্রবণতা এবং শুদ্ধভাবে তা গাওয়ার চর্চাসহ বিভিন্ন বিষয়ে কথা বলেন ।

নজরুল সঙ্গীত গাওয়ার ক্ষেত্রে তাঁর সময়ের সাথে নতুন প্রজন্মের শিল্পীদের পাথর্ক্য উল্লেখ করতে গিয়ে তিনি সাধনার বিষয়টি তুলে আনেন।

শাহীন সামাদ বলেন, আমাদের সময়ের সাথে নতুন প্রজন্মের নজরুল সঙ্গীত যারা গায় তাদের মূল পাথর্ক্যটা হলো সাধনায়। নজরুল সঙ্গীত গাওয়ার জন্য অনেক সাধনার দরকার হয়।

নজরুল সঙ্গীতের জন্য তারা যে সাধনা করেছেন নতুন প্রজন্মের কাছেও তা প্রত্যাশা করেন বলে জানান তিনি।

বিজ্ঞাপন

নতুন প্রজন্মের শিল্পীদের প্রতি অনুযোগ প্রকাশ করে শাহীন সামাদ বলেন, সত্যিই নজরুলকে ভালোবাসলে তার গান গাওয়ার জন্য দীর্ঘদিনের সাধনার দরকার। নতুন প্রজন্মের মধ্যে এই সাধনার করার প্রবণতা কম। যারা নজরুল সঙ্গীত গায় তাদের কাছে আমাদের প্রত্যাশা তারা যেনো এর জন্য কঠোর সাধনা করে।

তবে আশার কথাও শোনান তিনি। বলেন, অনেক নতুন ছাত্র ছাত্রী নজরুল সঙ্গীত শিখছে। নজরুল সঙ্গীত অনেক কারুকার্যময়, শেখাটা আসলে অনেক কঠিন। এজন্য আগে ছাত্র ছাত্রী কম আসতো। তবে এখন অনেকেই আসছে। তারা অনেক সুন্দর গাইছে।

নজরুল সঙ্গীতের সুরের ক্ষেত্রে নতুন প্রজন্মের গায়কদের মধ্যে কোন বিচ্যুতি লক্ষ্য করেন কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে শাহীন সামাদ বলেন, আমাদের সময়ে আমরা স্বরলিপি পেতাম। সে অনুযায়ী নজরুল সঙ্গীত শিখতাম। সাত আট বছর ধরে নজরুল ইন্সটিটিউট স্বরলিপি করছে। তারা তিন হাজারের মতো সঙ্গীতের স্বরলিপি করেছে। যারা নজরুল সঙ্গীত শেখাচ্ছেন তারা যেনো এই স্বরলিপি সংগ্রহ করে তা শেখান।

তাছাড়া বিভিন্ন জেলায় নজরুল সঙ্গীত গাওয়ার ক্ষেত্রে আঞ্চলিক উচ্চারণের একটা সমস্যা দেখা যায় উল্লেখ করে তিনি বলেন, এগুলো ঠিক করে নিতে হবে। সঠিক কথা, সঠিক সুরে নজরুল সঙ্গীত গাওয়া উচিত।

সোমবার সকাল ১১টা ৫ মিনিট থেকে এবি ব্যাংক-চ্যানেল আই ‘নজরুল মেলা’ পাওয়ার্ড বাই ফ্রেশ সরাসরি সম্প্রচার করবে চ্যানেল আই। এবারের মেলায় চ্যানেল আই এবং আইএফআইসি ব্যাংকের উদ্যোগে নজরুল সঙ্গীত শিল্পী খালিদ হোসেন এবং তরঙ্গ অব ক্যালিফোর্নিয়া’র সেক্রেটারি ও নজরুল গবেষক মোয়াজ্জেম হোসাইন চৌধুরীকে আজীবন সম্মাননা জানানো হবে।

বিজ্ঞাপন