চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

কলকাতায় এখনো সেন্সর-ই পায়নি ‘স্বপ্নজাল’

৪ মে কলকাতায় মুক্তি পাওয়ার কথা ছিলো গিয়াসউদ্দিন সেলিমের নির্মাণে প্রশংসিত চলচ্চিত্র ‘স্বপ্নজাল’। সে হিসেবে ক’দিন আগে গিয়ে সেখানে ছবির কলাকুশলীদের নিয়ে প্রচারণাও করে এসেছেন নির্মাতা। কিন্তু মূল কথা হচ্ছে, ছবিটি এখনো সেন্সর ছাড়পত্রই পায়নি কলকাতায়।

এমনটাই চ্যানেল আই অনলাইনকে জানালেন নির্মাতা গিয়াসউদ্দিন সেলিম।

ক’দিন আগে শোনা গিয়েছিলো, কলকাতায় সেন্সর ছাড়পত্র পেয়েছে স্বপ্নজাল। ছবিটি মুক্তি পাচ্ছে ৪ মে। কিন্তু এমন খবর অস্বীকার করলেন নির্মাতা গিয়াসউদ্দিন সেলিম। তিনি জানান: কলকাতায় এখনো স্বপ্নজাল ছবিটির সেন্সর-ই হয়নি। এটা ভুল নিউজ গেছে। কানাডা, আমেরিকাতে স্বপ্নজাল রিলিজ হয়েছে কিন্তু কলকাতায় এখনো ছবিটির মুক্তির তারিখ চূড়ান্ত হয়নি। সেন্সর ছাড়পত্র পাওয়ার পর মুক্তির তারিখ ঠিক করা হবে।

বর্তমানে ছবিটি কলকাতার সেন্সর বোর্ডে জমা আছে জানিয়ে গিয়াসউদ্দিন সেলিম আরো বলেন: সেন্সর বোর্ডে জমা আছে স্বপ্নজাল। প্রসেসিংয়ে আছে। ওদেরতো অনলাইনে সেন্সর হয়। অল ইন্ডিয়া একসাথে সেন্সর হয়। এখনো কিউ-ই আসেনি। সেন্সরের অনুমতি পেলেই কলকাতায় ছবিটি মুক্তি দেয়া হবে।

দেশের প্রেক্ষাগৃহে ‘স্বপ্নজাল’ বাণিজ্য সফল না হলেও প্রশংসা কুড়িয়েছে সমালোচকদের কাছে। পশ্চিমবঙ্গে ছবিটির পরিবেশনার দায়িত্বে থাকছে শীর্ষস্থানীয় প্রযোজনা সংস্থা ও পরিবেশক প্রতিষ্ঠান শ্রী ভেঙ্কটেশ ফিল্মস। এমনটাও জানালেন নির্মাতা।

২০১৬ সালের ফেব্রুয়ারিতে চাঁদপুরের ডাকাতিয়া নদীর পাড়ে ‘স্বপ্নজাল’-এর শুটিং শুরু হয়। কলকাতায়ও কিছু অংশের দৃশ্যায়ন হয়। সিনেমায় দেখা যায়, কঠোর বাস্তবতায় বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে অপু ও শুভ্রা নামের দুই তরুণ তরুণী। ছবিতে শুভ্রার চরিত্রে আছেন পরীমনি, আর অপু চরিত্রে ইয়াশ রোহান। বেঙ্গল ক্রিয়েশন্স ও বেঙ্গল বার্তার যৌথ প্রযোজনায় নির্মিত ‘স্বপ্নজাল’ এর কাহিনী ও চিত্রনাট্য করেছেন নির্মাতা গিয়াসউদ্দিন সেলিম নিজেই। ছবিতে পরী-ইয়াশ ছাড়াও আরও অভিনয় করেছেন মিশা সওদাগর, ফজলুর রহমান বাবু, শাহানা সুমী, শহিদুল আলম সাচ্চু, শিল্পী সরকার অপু, ইরফান সেলিম, ফারহানা মিঠু, ইরেশ যাকের, মুনিয়া, শাহেদ আলী, আহসানুল হক মিনুসহ আরও অনেকে।