চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

করোনায় প্রাণ হারালেন সুমো কুস্তিগির

করোনা যে কেবল দুর্বলদের ঘায়েল করতে পারছে সেটা যেন আরেকবার ভুল প্রমাণিত হল। জাপানের সবচেয়ে প্রাচীন ও প্রসিদ্ধ সুমো রেসলিংয়ের বিশালদেহী পালোয়ানও পরাস্ত করতে পারলেন না ভাইরাসটিকে।

প্রায় একমাস করোনার সঙ্গে লড়াইয়ের পর প্রাণ হারিয়েছেন শোবুশি নামের ২৮ বছর বয়সী এক সুমো কুস্তিগির। তাকাদাগাওয়ার একজন কুস্তি লড়িয়ে ছিলেন তিনি।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

বিবৃতিতে জাপান সুমো অ্যাসোসিয়েশন জানিয়েছে, এপ্রিলের ৪-৫ তারিখ নাগাদ জ্বরে আক্রান্ত হন শোবুশি। সেসময় স্থানীয় স্বাস্থ্য কর্মীদের ফোন দিলেও ফোন লাইন ব্যস্ত থাকায় তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারেননি তিনি।

বিজ্ঞাপন

পরে একাধিক হাসপাতালে ভর্তির চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়ে শেষপর্যন্ত ৮ এপ্রিল টোকিও জেনারেল হাসপাতালে যান শোবুশি। সেখানে তার করোনা পরীক্ষার পর প্রথমে ফল নেগেটিভ আসলেও দুদিন বাদে পজিটিভ আসে।

জাপানে করোনায় আক্রান্ত হয়ে সুমো কুস্তিগিরের মৃত্যুর ঘটনা এটিই প্রথম। তবে প্রশিক্ষকসহ একাধিক কুস্তি লড়িয়ে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি আছেন।