চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

করোনায় থেমে নেই ‘মিস্টার এন্ড মিসেস ফটোজেনিক’ প্রতিযোগিতা

করোনাকালেও থেমে নেই ‘মিস্টার এন্ড মিসেস ফটোজেনিক’ প্রতিযোগিতা। দ্বিতীয়বারের মতো এ আয়োজন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। আড়াই শতাধিক আবেদন থেকে প্রাথমিক বাছাইপর্বে রাখা হয়েছে ২৫ জন প্রতিযোগিকে।

এ আয়োজনের পরিচালনা করছেন ফ্যাশন ডিজাইনার ওয়ালি আহমেদ ও জনপ্রিয় মডেল সৈয়দ রুমা, সার্বিক তত্ত্বাবধানে ওয়ালি এসোসিয়েট। তারা জানান, সর্বোচ্চ সচেতনতা অবলম্বন করে, স্বাস্থ্যবিধি মেনে এ কার্যক্রম চলছে।

বিজ্ঞাপন

রোববার (২৬ জুলাই) সেমিফাইনাল রাউন্ডে ১২ জন প্রতিযোগী নির্বাচন করা হবে। তারা লড়বেন ফাইনালে। ঈদুল আযহার পর গ্র্যান্ড ফিনালে অনুষ্ঠিত হবে।

বিজ্ঞাপন

ওয়ালি আহমেদ চ্যানেল আই অনলাইনকে বলেন, করোনার কারণে ঢাকার বাইরে থেকে যারা আবেদন করেছেন তাদের এবার ডাকিনি। গত পহেলা বৈশাখের পর থেকে প্রতিযোগিতা শুরু করেছি। জুনে প্রথম সপ্তাহে অডিশন রাউন্ড সম্পন্ন করেছি।

যে ২৫ জনকে অডিশনে রাখা হয়েছে তাদের দিয়ে বিভিন্ন ফটোশুট, ভিডিও শুটসহ বিভিন্ন ব্র্যান্ডের শুট করিয়ে তৈরি করানো হয়েছে। অডিশন রাউন্ডের বিচারক ছিলেন নায়লা নাঈম, আরজে সায়েম, সৈয়দ রুমা, ওয়ালি সুজন। জানা যায়, সেমিফাইনাল ও চূড়ান্ত পর্বে বিচারকদের তালিকায় থাকবে চমক।

আয়োজনটির পরিচালক সৈয়দ রুমা বলেন, ৪ মাস কাজ ছাড়া দূরে ছিলাম। মিডিয়ার অন্যান্য কাজ সীমিত আকারে শুরু হয়েছে। তাই আমরাও করোনা থেকে সুরক্ষার নিয়ম মেনেই কার্যক্রম চালাচ্ছি। করোনার কারণে কাজে একটু তো সমস্যা হচ্ছেই। তারপরও দূরত্ব বজায় রেখেই কাজ করছি। হয়তো ক্যামেরার সামনে এগুলো দেখাচ্ছি না।

‘মিস্টার এন্ড মিসেস ফটোজেনিক’ প্রতিযোগিতা দুই পরিচালক ওয়ালি আহমেদ ও সৈয়দ রুমা জানান, একজন ছেলে (মিস্টার) ও একজন মেয়ে (মিসেস) বিজয়ী হবেন। এছাড়া দু’জন ছেলে এবং দু’জন মেয়ে হবেন প্রথম ও দ্বিতীয় রানার্স আপ। তারা এ প্ল্যাটফর্ম থেকে বেরিয়ে মিডিয়াতে ক্যারিয়ার গড়তে পারবেন।