চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ঐক্যফ্রন্টের কিছু নেতা খুবই বাড়াবাড়ি করছেন: কাদের

নির্বাচন কমিশন পুনর্গঠনের দাবি বাম নেতাদের

সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে আজ মঙ্গলবারের জনসভায় অংশ নেয়া ঐক্যফ্রন্ট নেতাদের বক্তব্যের সমালোচনা করে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন: জনসভা থেকে আমাদের নেত্রী মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নামটিও অশালীন ভাবে উচ্চারণ করা হয়েছে। দুই একজনকে দেখলাম খুবই বাড়াবাড়ি করছেন। আমি পরিবহন সেক্টরে ডিল করিত, ওরা প্রায়ই এ শব্দ ব্যবহার করে। অামি বলবো এরা খুব বেশি ‘তাফালিং’ করছে।

মঙ্গলবার রাতে গণভবনে বাম গণতান্ত্রিক ঐক্যজোটের সঙ্গে সংলাপ শেষে বের হয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন: ভিন্ন ধর্মালম্বী যখন মুসলমান হয় তখন নামাজটা একটু বেশি পড়ে। গরুর মাংস একটু বেশি খায়। আমি ঐক্যফ্রন্ট নেতাদের ভেতর দেখছি তারা এটাই করছেন।

এসময় শালীন ভাবে কথা বলার আহ্বান জানিয়ে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন: সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের জনসভায় যে ভালগারিজম বাংলাদেশের রাজনীতিতে নতুন করে আবার দেখলাম। এটা শঙ্কার। আমি শুধু বলতে চাই, মানুষের হতাশা যখন বেড়ে যায় তখন তার অবস্থা যেমন হয়; ঐক্যফ্রন্টের অনেক নেতার মধ্যে সে অবস্থাটাই দেখলাম।

তিনি যোগ করেন: প্রধানমন্ত্রীর নামটিও শালীনতার সঙ্গে নেয়া হয়নি। তার নামটি উচ্চারণ করা হয়েছে অশালীনভাবে। লেখালেখি করছেন, আজকে সোহরাওয়ার্দীতে এক হাত নিলেন। এগুলোকে ভালো চোখে নেয়া যায় না। তাদেরকে আমি বলব, যৌক্তিকভাবে কথা বলতে, ব্যক্তিগত আক্রমণে পর্যায়ে গেলে এটা গণতন্ত্রের জন্য শুভ ফল বয়ে আনবে না।

সেই সঙ্গে ঐক্যফ্রন্টের সঙ্গে আগামীকাল বুধবার সকালের সংলাপে এ বিষয়টি উঠতে পারে বলে ইঙ্গিত দিয়ে রাখেন আওয়ামী লীগের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ সাংগঠনিক এ নেতা। 

Advertisement

সংলাপের বিষয়য়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, আমি নির্বাচনে অংশগ্রহণের ব্যাপারে আমি যখন কমিউনিস্ট পার্টির অফিসে গিয়েছিলাম তারা তখন এটা বলেছে যে আমরা আওয়ামী লীগের সঙ্গেও নেই বিএনপির সঙ্গেও নেই। এখন তারা আপনাদের কী বলেছে জানি না। আমরা সবার কথা শুনছি। আগামিকাল দুপুরেও শুনব। কাল সকালে ড. কামালে হোসেনের নেতৃত্বে ১১ জন আসবেন। নাম পাঠিয়েছেন। তারা দ্বিতীয় দফা সংলাপে অংশ নেবেন। আবার রাতে ২৫ টি দলের সঙ্গে সংলাপ আছে সন্ধ্যা ৭ টায়। কালকেই শেষ হবে সংলাপের এবং আপনারা জানেন ইতোমধ্যে ৮ নভেম্বর দুপুর সাড়ে ১২টায় প্রধানমন্ত্রী এ কয়দিন যে সংলাপ হয়েছে তা নিয়ে সরকারি ও পার্টির সিদ্ধান্ত সংবাদ সম্মেলনের মধ্যদিয়ে দেশবাসীকে জানিয়ে দেবে।

ঐক্যফ্রন্টের সঙ্গে আলোচনার আর কী বাকি আছে সেটা সবিনয়ে কাল সংলাপে জানতে চাওয়া হবে জানিয়ে ওবায়দুল কাদের।

‘আসুন আন্দোলন করুন। ঘরে ঘরে বসে আন্দোলনের নামে রাস্তায় নাশকতা করবেন, সহিংসতা করবেন আর আমরা ঘরে বসে ডুগডুগি বাজাব এটা যেন মনে না করেন’,  বলে ঐক্যফ্রন্ট নেতাদের হুঁশিয়ারি দেন তিনি।

নির্বাচন কমিশন পুনর্গঠনের দাবি বাম নেতাদের: প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতির সঙ্গে সংলাপে নির্বাচন কমিশন পুনর্গঠনের দাবি করেছেন বাম নেতারা। সংলাপ শেষে এ কথা জানিয়েছেন বাম গণতান্ত্রিক ঐক্যের সমন্বয়ক সাইফুল হক।

সংলাপে বামদের পক্ষ থেকে, নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহার না করা, রাজনৈতিক কারণে হয়রানি বন্ধ, বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলো নির্বাচনে অংশ নেয়ার সুযোগসহ বেশ কিছু দাবি তুলে ধরা হয়েছে।

সেই সঙ্গে দাবি আদায়ে সংলাপ এবং রাজপথে আন্দোলন অব্যাহত থাকবে বলে জানানো হয় তাদের পক্ষ থেকে।