চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ইরফান সেলিমের জামিন বহাল রেখেছেন সর্বোচ্চ আদালত

নৌবাহিনীর কর্মকর্তাকে মারধরের অভিযোগের মামলায় হাজী সেলিমের পুত্র ইরফান সেলিমকে হাইকোর্টের দেয়া জামিন বহাল রেখেছেন দেশের সর্বোচ্চ আদালত।

হাইকোর্টের দেয়া জামিন স্থগিত করে চেম্বার আদালতের দেয়া আদেশ প্রত্যাহার চেয়ে ইরফান সেলিমের করা আবেদনের শুনানি নিয়ে প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বাধীন ছয় বিচারপতির আপিল বেঞ্চ রোববার এই আদেশ দেন। আদালতে ইরফান সেলিমের পক্ষে শুনানিতে ছিলেন অ্যাডভোকেট আব্দুল বাসেত মজুমদার ও সাঈদ আহমেদ রাজা। আর রাষ্ট্রপক্ষে শুনানিতে ছিলেন অ্যাটর্নি জেনারেল এ এম আমিন উদ্দিন, অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল শেখ মোহাম্মদ মোরশেদ ও ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল বিশ্বজিৎ দেবনাথ। আজকের এই আদেশের ফলে ইরফান সেলিমের কারামুক্তিতে বাধা নেই বলে জানিয়েছেন তার আইনজীবী সাঈদ আহমেদ রাজা।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

গত ১৮ মার্চ বিচারপতি জাহাঙ্গীর হোসেন সেলিম ও বিচারপতি মো. বদরুজ্জামানের হাইকোর্ট বেঞ্চ ইরফান সেলিমকে এই মামলায় জামিন দেন। তবে সে জামিন আদেশ স্থগিত চেয়ে রাষ্ট্রপক্ষের আবেদনের শুনানি নিয়ে গত ২৮ মার্চ চেম্বার আদালতের বিচারপতি ওবায়দুল হাসান ইরফানের জামিন চার সপ্তাহের জন্য স্থগিত করেন। তবে সে স্থগিত আদেশ প্রত্যাহার চেয়ে গত ৮ এপ্রিল ইরফান সেলিম আবেদন করলে চেম্বার আদালতের বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকী বিষয়টি প্রধান বিচারপতি নেতৃত্বাধীন নিয়মিত আপিল বেঞ্চে শুনানির জন্য নির্ধারণ করেন। সে ধারাবাহিকতায় আজ এবিষয়ে শুনানির পর আদেশ দিলেন দেশের সর্বোচ্চ আদালত।

গত বছরের ২৫ অক্টোবর রাতে রাজধানীর ধানমন্ডি এলাকায় নৌবাহিনীর কর্মকর্তা ওয়াসিফ আহম্মেদ খানকে মারধরের অভিযোগ ওঠে ইরফান ও তাঁর সহযোগীর বিরুদ্ধে। ঘটনার পরদিন নৌবাহিনীর কর্মকর্তা ওয়াসিফ ধানমন্ডি মডেল থানায় মামলা করেন। সে মামলায় ইরফানসহ চারজন ও অজ্ঞাতনামা দুই থেকে তিনজনকে আসামি করা হয়।

ঢাকা-৭ আসনের সংসদ সদস্য হাজী সেলিমের পুত্র ইরফান সেলিম ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের ৩০ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ছিলেন। তবে নৈতিক স্খলনজনিত অপরাধ ও অসদাচরণের অভিযোগে সম্প্রতি তাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়।