চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ইংল্যান্ড-অস্ট্রেলিয়া খোঁচাখুঁচি শুরু

মঙ্গলবার লন্ডনে মুখোমুখি হবে ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়া। সেই ম্যাচ নিয়ে বিবৃতির লড়াই শুরু করে দিলেন দু’দেশের সাবেকরা। শুরুটা করেছিলেন ইংল্যান্ডের সাবেক ব্যাটসম্যান কেভিন পিটারসেন। বাংলাদেশের বিরুদ্ধে জিতলেও ৩৩৩ রান দিয়েছেন অস্ট্রেলিয়ান বোলাররা। সে কথা মনে করিয়ে দিয়ে টুইটারে পিটারসেনের কটাক্ষ, ‘অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে বাংলাদেশ ৩৩৩ রান তুলেছে। তার মানে ইংল্যান্ড ৪০০ রানের বেশি তুলবে।’

এভাবে রসিকতা করে কেপি যেন বুঝিয়ে দিয়েছেন, ইংল্যান্ড ম্যাচে অস্ট্রেলিয়া দলের কোনো আশা নেই। এতেই শেষ নয়। অজিদের বিশ্বকাপ ছেড়ে এখনই দেশে ফিরে অ্যাসেজ সিরিজের জন্য প্রস্তুতি নেয়ার পরামর্শ দিয়েছেন এ সাবেক।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

এদিকে ইংল্যান্ড শ্রীলঙ্কার কাছে হারতেই আসরে নেমে পড়েন শেন ওয়ার্ন, ডিন জোন্সরা। কেপির জন্য ওয়ার্নের চাঁচাছোলা টুইট, ‘অসাধারণ বন্ধু, ওয়েলডান। এখন তোমার দলের কী হল? ইংল্যান্ডের আর একটা হোঁচট অথবা??? অস্ট্রেলিয়া আর ভারত এখনো ফেভারিটের দলে।’

এসবের মধ্যে অবশ্য বিশ্বকাপে মসৃণভাবে এগিয়ে চলেছে অস্ট্রেলিয়া এবং সেখান থেকে ফোকাস সরাচ্ছে না ক্যাঙারু বাহিনী। জফরা আর্চার, মার্ক উডের বোলিং নিয়ে সর্বত্র আলোচনা চলছে। যদিও গ্লেন ম্যাক্সওয়েল মনে করছেন, ইংল্যান্ডের পেস ব্যাটারি নিয়ে বেশি ভাবার কিছু নেই। তার সাফ কথা, ‘আমরা অস্ট্রেলিয়ানরা বেশি গতির বোলিংয়ের বিরুদ্ধে খেলতে অভ্যস্ত।’ একইসঙ্গে মিচেল স্টার্ক, প্যাট কামিন্সদের উপর পুরো আস্থা রয়েছে তার।

যদিও অজিদের জন্য বা আরও ভালোভাবে বললে স্টিভেন স্মিথ ও ডেভিড ওয়ার্নারকে ‘স্বাগত’ জানানোর জন্যও তৈরি থাকবেন ওভালের ইংলিশ দর্শকরা। বিশেষ করে ইংল্যান্ডে প্রস্তুতি ম্যাচেই স্মিথ-ওয়ার্নারের দিকে ‘চিটার’ বলে ব্যঙ্গ করেছেন দর্শকরা। যা নিয়ে অনেক জলঘোলা হয়েছে। তারপরেও অস্ট্রেলিয়া-ইংল্যান্ড ম্যাচে ‘চিটারগেট’ নিয়ে সরগরম হতে পারে গ্যালারি। কেপি-ওয়ার্নরা সেই দামামা তো বাজিয়েই দিলেন।

Bellow Post-Green View