চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

রাসায়নিক ভরা জাহাজে আগুন, শ্রীলঙ্কায় এসিড বৃষ্টির আশঙ্কা

কলম্বো সমুদ্রতীরে গত সপ্তাহে সিঙ্গাপুরের পতাকাবাহী কার্গো জাহাজে আগুন ধরে যাওয়ায় নির্গত হওয়া নাইট্রোজেন ডাই-অক্সাইডের কারণে শ্রীলঙ্কায় হালকা এসিড বৃষ্টি হতে পারে বলে জানিয়েছে শ্রীলঙ্কার শীর্ষ পরিবেশবিদরা।

দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার ক্ষেত্রে জনগণকে সতর্ক থাকতে বলেছেন তারা।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

এমভি এক্সপ্রেস পার্ল নামের কার্গো জাহাজটি রাসায়নিক ও কসমেটিকসের কাঁচামাল নিয়ে ভারতের গুজরাটের হাজিরা থেকে কলম্বো বন্দরে যাচ্ছিল। কলম্বো উপকূল থেকে ৯.৫ নটিক্যাল মাইল দূরে তাতে আগুন ধরে যায়।

গত ২০ মে থেকে কলম্বো বন্দরের বাইরে জাহাজটি নোঙ্গর করা ছিল।

বিজ্ঞাপন

জাহাজটির ট্যাঙ্কে থাকা ৩২৫ মেট্রিক টন জ্বালানি ছাড়াও এমভি একপ্রেস পার্লে ১,৪৮৬টি কন্টেইনারে ২৫ টন বিপজ্জনক নাইট্রিক অ্যাসিড ছিল।

মেরিন এনভায়রন প্রটেকশন অথরিটি’র (এমইপিএ) চেয়ারপারসন ধারশানি লাহান্দাপুরা বলেন, আমরা পর্যবেক্ষণ করেছি এমভি এক্সপ্রেস পার্ল থেকে নাইট্রোজেন ডাইঅক্সাইডের নির্গমন খুবই প্রবল। যেহেতু বর্ষার মৌসুমে এই গ্যাস নির্গমন হলো। ফলে হালকা এসিড বৃষ্টি হওয়ার আশঙ্কা আছে।

কর্মকর্তারা বলছেন, বিশেষ করে উপকূলীয় এলাকার আশপাশের মানুষদের বেশি সতর্ক থাকতে হবে এবং কোনোভাবেই এই সময়ে বৃষ্টিতে ভেজা যাবে না।

এরই মধ্যে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনা হয়েছে এবং দূষণের ঝুঁকি এড়াতে সমুদ্রতীর পরিচ্ছন্ন করার জন্য যাবতীয় পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে এমইপিএ। জাহাজটির এখন আর দুই ভাগে ভেঙে পড়ার ভয় নেই এবং সেটি বেশ স্থির আছে।

মঙ্গলবার ফায়ার এলার্ম পেয়েই জাহাজে থাকা ২৫ জন ভারতীয়, চীনা, রাশিয়ান ও ফিলিপিনো ক্রুদের উদ্ধার করা হয়েছে।