চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

গাছের সঙ্গে বেঁধে নির্যাতনে এক ব্যক্তির মৃত্যু, অভিযুক্ত শ্বাশুড়ি ও স্ত্রী

মেহেরপুরের গাংনীতে শ্বাশুড়ি ও স্ত্রীর বিরুদ্ধে স্বামী সাইফুল ইসলামকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে।

বুধবার ভোরে কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। সাইফুল ইসলাম বামুন্দী নিশিপুর গ্রামের ভাদু মন্ডলের ছেলে।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

সাইফুলের পিতা ভাদু মন্ডল জানান, মঙ্গলবার ভোরে সাইফুলের স্ত্রী রোজিনা ও তার শ্বাশুড়ি-শ্বশুর তাকে গাছের সঙ্গে বেঁধে নির্যাতন করে। আহতবস্থায় তাকে প্রথমে গাংনী হাসপাতালে ও পরে কুষ্টিয়া মেডিক্যালে নেয়া হলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

রোজিনা জানান, স্বামী সাইফুল প্রায়ই মাদক সেবন করে বাড়িতে ফিরে নির্যাতন করতো। পারিবারিক বিরোধের জেরে ঘটনার রাতে স্বামী সাইফুল ধারালো চাকু দিয়ে তাকে হত্যার করার চেষ্টা করে। বাধা দিতে গেলে ছুরির আঘাতে জখম হয়। নির্যাতনের বিষয়ে কোন মন্তব্য করেনি তিনি।

গাংনী থানার ওসি বজলুর রহমান জানান, কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে সাইফুল মারা গেছে বলে জানতে পেরেছি। নিহতের পরিবার থেকে এখন পর্যন্ত কেউ লিখিত অভিযোগ করেনি। মামলা হলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।