চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

‘মহাভারত’-এর জন্য আমিরের দশ বছর!

তার খ্যাতি কেবল উপমহাদেশের গন্ডিতে আবদ্ধ নয়। বিশ্ব জুড়ে চলচ্চিত্রের পরিচিত মুখ। অভিনয়ের নিখুঁত চরিত্র হয়ে উঠতে তার নিষ্ঠা, অবিরাম পরিশ্রম আর আবেগ ছুঁয়ে যায় তার বিশ্বজোড়া অনুসারীদের। বছরে একটি সিনেমা করলেও সে আবেগে ঘাটতি পড়েনা তার ভক্তদের। দলে দলে সিনেমা থিয়েটারে এসে প্রিয় তারকার চলচ্চিত্র দলবেঁধে উপভোগ করেন তারা। সেটা ‘দঙ্গল’, ‘পিকে’ বা ‘সিক্রেট সুপারস্টার’ যেটা হোক না কেন।

তিনি আমির খান। কখনও ‘সারফারোশ’ আবার কখনও ‘সত্যম শিবম সুন্দরম’

তার মহাভারত’ নির্মাণের ঘোষণা বেশ আগের। তবে ‘পদ্মাবত’ বিতর্ক পরবর্তী তার ‘মহাভারত’ নির্মাণ নিয়েও জলঘোলা হচ্ছে । উগ্র হিন্দুত্ববাদী গোষ্ঠীদের মাঝ থেকে আওয়অজ উঠছিল মুসলিম আমির কেন মহাভারত নির্মাণ করবেন। এসব কারণে ‘মহাভারত’ এর নির্মাণ নিয়ে অনিশ্চয়তা বাড়ছিল।

খ্যাতিমান ভারতীয় চলচ্চিত্র বিষয়ক পত্রিকা ফিল্মফেয়ার তার অনলাইন ভার্সনে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, আমির খান মহাভারত নির্মাণ হচ্ছে। তবে এতে লাগবে ১০ বছর। ফিল্মফেয়ার আমির ঘনিষ্ঠ সুত্রের বরাত দিয়ে জানায়, চলচ্চিত্রটির প্রতিটি ক্ষেত্রে নিজের ভূমিকা রাখতে চান আমির। তবে অভিনয়ে তিনি ছাড়া আর অন্য কোন তারকাকে অন্তর্ভূক্ত করা হবেনা। বাকী শিল্পীরা সবাই থাকবেন নতুন।

ছবিটির প্রি প্রোডাকশন্সের কাজ এ বছর থেকে শুরু হবে। এ বছরের শেষ ভাগে সিনেমার শটিং পর্ব শুরু হবে।

যেহেতু নামটি আমির খান। তার ভাবনা এবং পরিকল্পনার ওপর আস্থা রাখাই যায়। এটি ভাবা বাতুলতা হবেনা যে আমির খানের ‘মহাভারত’ মুক্তি পেল বিশ্বজুড়ে সাফল্যের মহাভূমিকম্প তৈরী করবে। ততবে সময়ের দীর্ঘতায় চলচ্চিত্র নির্মাণ অসমাপ্ত না থেকেও সে আশঙ্কা থেকেই যায়।