চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ভারতের ‘না’তে পাকিস্তানের পাল্টা হুমকি

২০২০ এশিয়া কাপ টি-টুয়েন্টি আয়োজনের দায়িত্ব পাকিস্তানের। তাতে আপত্তি নেই চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতের। আবার আপত্তির জায়গা একটা আছেও, টুর্নামেন্ট যদি পাকিস্তানের মাটিতে হয় দল পাঠাবে না বলে সাফ জানিয়েছে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড। বিসিসিআইয়ের জবাবে পিসিবিও জানিয়ে দিয়েছে, ভারত না এলে ২০২১ টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপে দেশটিতে দল পাঠাবে না তারাও!

বর্তমানে ভারত-পাকিস্তানের ক্রিকেটীয় সম্পর্ক অতীতের যেকোনো সময়ের তুলনায় বেশ করুণ। আসছে সেপ্টেম্বরে পাকিস্তানের কাঁধে এশিয়া কাপ আয়োজনের ভার থাকায় ধারণা করা হচ্ছিল ভারত বুঝি বিরত থাকবে আসরে খেলা থেকে। বিসিসিআইয়ের এক কর্মকর্তা বার্তা সংস্থা আইএএনএসকে জানিয়েছেন, আয়োজক হিসেবে পাকিস্তানের ভূমিকা নিয়ে কোনো প্রশ্ন নেই তাদের। আপত্তি যত দেশটির মাটিতে গিয়ে খেলা নিয়ে।

‘পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড নিয়ে আমাদের কোনো প্রশ্ন নেই। প্রশ্ন হচ্ছে ভেন্যু আর আনুষঙ্গিক বিষয় নিয়ে। এটা একদম পরিষ্কার যে, আমরা নিরপেক্ষ ভেন্যুতে খেলতে আগ্রহী। ভারত কোনোভাবেই পাকিস্তানে গিয়ে খেলতে রাজী নয়। এমনকি সেটা যদি এশিয়া কাপের মতো বহুজাতিক টুর্নামেন্টও হয়।’

বিজ্ঞাপন

‘যদি এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিল মনে করে ভারতকে ছাড়াই এশিয়া কাপ আয়োজন করবে, তাহলে সেটা অন্য কথা। আর এশিয়া কাপে ভারতকে যদি রাখতেই হয়, তাহলে নিরপেক্ষ ভেন্যুতে আয়োজন করতে হবে। কোনোভাবেই পাকিস্তানে নয়।’

পাকিস্তান চাইলেই যে নিরপেক্ষ ভেন্যুতে আয়োজন করা সম্ভব সেটা ভারতকে দিয়েই উদাহরণ দিয়েছেন বিসিসিআইয়ের ওই কর্মকর্তা। ২০১৮ সালে ভারতের মাটিতে পাকিস্তানি ক্রিকেটারদের ভিসাজনিত সমস্যা থাকায় আরব আমিরাতে এশিয়া কাপ আয়োজন করেছিল ভারতীয় বোর্ড। এবার তেমন কিছু না হলে কেবল পিসিবির স্বদিচ্ছার অভাবই দেখছেন তিনি।

বিসিসিআই কর্মকর্তার এমন মন্তব্যে অবশ্য বেশ চটেছে পিসিবি। মাত্রই বাংলাদেশকে তাদের মাটিতে তিন টি-টুয়েন্টি খেলিয়ে যেখানে তারা প্রমাণ করতে চেয়েছে পাকিস্তানে ক্রিকেট এখন নিরাপদ, সেখানে ভারতের এমন মনোভাব তাদের জন্য বিব্রতকরই। পিসিবি পাল্টা হুমকিই দিয়েছে তাই। বলেছে, ভারত না এলে ২০২১ টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপে দল পাঠাবে না পাকিস্তানও!

বিজ্ঞাপন