চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

বন্যা পরিস্থিতি নিয়ে নতুন শঙ্কা ও প্রস্তুতি

করোনাভাইরাস প্রকোপের মধ্যেই দেশে নতুন শঙ্কা হিসেবে দেখা দিয়েছে বন্যা। দেশের বিভিন্ন জেলায় ইতোমধ্যে বন্যা পরিস্থিতির অবনতি হয়েছে। বন্যার পানিতে ডুবে গেছে অনেক এলাকা। এ নিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও শঙ্কা প্রকাশ করেছেন।

তিনি বলেছেন: এবারের বন্যা দীর্ঘস্থায়ী হতে পারে। কারণ বন্যার প্রকোপটা এখনই বেশি দেখা দিচ্ছে। সামনে আগস্ট এবং সেপ্টেম্বর পর্যন্ত আরও বন্যা হওয়ার শঙ্কা আছে। তবে আমাদের প্রস্তুতি আছে বন্যা মোকাবিলা করার।

বিজ্ঞাপন

বন্যা মোকাবেলার বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীর আশ্বাসে আমরা আশ্বস্ত হতে চাই। এ বিষয়টি তার নজরদারিতে রয়েছে বলেও জানা গেছে। তার দিকনির্দেশনায় বন্যা কবলিত এলাকায় আরও বেশি সহায়তা ও পূনর্বাসন কার্যক্রম পরিচালনার উদ্যোগ নেওয়া হবে বলে আমরা আশা করি।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

প্রধানমন্ত্রী বলেছেন: বন্যায় যারা ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন এবং নদী ভাঙনে যারা গৃহহারা হচ্ছেন তাদের পুনর্বাসনের উদ্যোগ নেয়া হবে। এবার বাজেটে আমরা আলাদা বরাদ্দ রেখেছি, গৃহহীন মানুষের আবাসের বন্দোবস্ত করার জন্য।

করোনাভাইরাস মোকাবেলায় সরকারের অনেক উদ্যোগ আমরা লক্ষ্য করেছি। ক্ষতিগ্রস্তদের আর্থিক সহায়তা থেকে শুরু করে নানা ধরনের প্রণোদনা দেওয়া হয়েছে। তবে এসব ক্ষেত্রে যারা দায়িত্বশীল বা জনপ্রতিনিধি, তাদের অনেকেই অনিয়ম ও দুর্নীতি করেছেন, করার চেষ্টা করেছেন। এসব কারণেই সরকারের ভালো উদ্যোগগুলো প্রশ্নবিদ্ধ হয়। এক্ষেত্রে সঠিক ব্যবস্থাপনা ও দায়িত্ববোধের পরিচয় না দিলে সব উদ্যোগই প্রশ্নবিদ্ধ থেকে যাবে। সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ আশা করি এ ব্যাপারে নজর দেবেন।

বন্যা পরিস্থিতি মোকাবেলার ক্ষেত্রে এমনটা হবে না বলেই আমরা আশা করি। সবাই যার যার দায়িত্ব ঠিকভাবে পালন করলে খুব সহজেই বন্যা কবলিত এলাকার মানুষেরা ক্ষতি কাটিয়ে উঠতে পারবেন। এজন্য সবাইকে যথাযথ উদ্যোগ গ্রহণ করে আন্তরিকভাবে দায়িত্ব পালন করে যেতে আমরা আহ্বান জানাচ্ছি।