চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

নায়িকা নুসরাতের সংসারে ভাঙনের সুর, নেপথ্যে যশ?

পশ্চিমবঙ্গের জনপ্রিয় নায়িকা ও নেত্রী নুসরাত জাহানের সংসারে ভাঙনের সুর। স্বামী নিখিল জৈনের সঙ্গে নাকি তার সম্পর্ক নেই! কলকাতার শীর্ষস্থানীয় বেশ কয়েকটি সংবাদ মাধ্যমে এমন ইঙ্গিতই দুদিন ধরে।

এমন খবরের সত্যতা কতোটুকু? কলকাতার সংবাদে বলা হচ্ছে, বিয়ের শুরু থেকেই নিখিল ও নুসরাত সামাজিক মাধ্যমে নিজেদের বিভিন্নভাবে উপস্থাপন করেছেন। সোশাল মিডিয়াতেও মাখামাখি ছিলো বেশ। প্রায়শই চেক ইন থাকতো তাদের! কিন্তু বহুদিন ধরেই সামাজিক মাধ্যমে নিখিলের সঙ্গে নুসরাতের, কিংবা নুসারাতের সঙ্গে নিখিলের কোনো অ্যাক্টিভিটি নেই! এমনকি নুসরাতের বেশকিছু পোস্ট করা ছবিও নাকি নিখিল সরিয়ে নিয়েছেন!

বিজ্ঞাপন

আর এমন সন্দেহের বীজ আরো স্পষ্ট হলো সম্প্রতি। কারণ সিনেমার কাজ ছাড়াই নুসরাত ঘুরতে গিয়েছেন আজমীর শরীফ, যেখানে তার সঙ্গে দেখা দেখে অভিনেতা যশরাজকে। এরপর থেকেই গুঞ্জন ভেসে বেড়াচ্ছে যে, যশের সঙ্গেই প্রেম করছেন বসিরহাটের সাংসদ সদস্য ও নায়িকা নুসরাত!

ডিসেম্বর শেষে চেনা গণ্ডি পেরিয়ে বেরিয়ে পড়েছিলেন নুসরাত। অন্যদিকে অভিনেতা যশের সোশ্যাল মিডিয়াও বলছে মরুভূমি এলাকাতেই রোড ট্রিপে গিয়েছেন তিনি। সুতরাং অনুরাগীদের বুঝে নিতে অসুবিধা হয়নি রাজস্থানেই রয়েছেন যশ-নুসরাত। সঙ্গত কারণেই প্রশ্ন উঠছে, তবে কি একসঙ্গে ছুটি কাটাচ্ছেন যশ-নুসরাত?

এমনকি একসঙ্গে আজমির শরীফের দরগায় দেখা মিলেছে যশ-নুসরাতের। এই জুটির ফ্যানপেজ থেকে তাদের আজমির দর্শনের একাধিক ছবি ও ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। হযরত খাজা মইনুদ্দিন চিশতির দরগায় চাদর দিতে পৌঁছেছিলেন নুসরাত। অন্যদিকে নুসরাতের সঙ্গে হাজির যশ। প্রথা মেনে মাথায় ফেজ টুপি পরেছিলেন যশ। দু’জনের গলাতে দেখা গিয়েছে লাল মালা।

স্থানীয় মিডিয়া বলছে, গত ২৯ ডিসেম্বর (মঙ্গলবার) আজমির শরিফ দরগায় পৌঁছে ছিলেন যশ-নুসরাত। নুসরাতের পরিচিতি গোটা দেশ জুড়ে, তৃণমূলের এই গ্ল্যামারাস সাংসদকে চিনে নিতে অসুবিধা হয়নি স্থানীয় সাংবাদিকদের। তাদের মুখোমুখি হয়ে নুসরাত জানান, ছোট থেকেই (খাজা) বাবার আশীর্বাদ নিতে তিনি প্রতি বছর এখানে আসেন। বাবার আর্শীবাদেই তার জীবন চলছে।

দুই তারকার একসঙ্গে মরু সফর ও আজমির দর্শনকে কেন্দ্র করে দুয়ে-দুয়ে চার মেলানো অস্বাভাবিক কিছু নয়। যেহেতু আশ্চর্যজনকভাবে নুসরাতের সোশ্যাল মিডিয়া প্রায় সাত মাস ধরে স্বামী নিখিল-হীন! -হিন্দুস্তান টাইমস