চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

দিল্লির মন্দিরে জীবাণুনাশক ছিটাচ্ছেন বোরকা পরা ইমরানা

পা থেকে মাথা পর্যন্ত বোরকায় ঢাকা ইমরানা সাইফি (৩২)। ভারতের দিল্লির নেহেরু বিহারের নবদুর্গা মন্দিরে গেলে চোখে পড়বে তাকে। না, তিনি সাধারণ কোনো দর্শনার্থী নয়। তিনি একজন করোনাযোদ্ধা।

করোনাভাইরাসের ভয়ে সবাই যখন নিজেকে গুটিয়ে নিয়েছেন, তখন ইমরানা কাজ করে যাচ্ছেন স্বেচ্ছাসেবী হিসেবে, জাতি ও ধর্ম নির্বিশেষে।

বিজ্ঞাপন

এই দিল্লিতে মাস দুয়েক আগেও জাতিগত দাঙ্গায় চলেছে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ। সেখানে করোনাভাইরাসের মধ্যেও অসাম্প্রদায়িক সমাজের মূর্ত প্রতিচ্ছবি হয়েছে ইমরানা সাইফি।

বিজ্ঞাপন

করোনামুক্ত রাখতে আশেপাশের মন্দির, মসজিদ, রাস্তায় নিজ হাতে জীবাণুনাশক ছিটাচ্ছেন ইমরানা। রোজা রেখে প্রতিদিন এ কাজ করে চলেছেন ইমরানা।

বিজ্ঞাপন

তার এ কাজের জন্য তাকে স্বাগত জানিয়েছে স্থানীয় মন্দিরের পুরোহিত। তার অনুরোধে মন্দিরের ভেতর বাইরে জীবাণুনাশক ছিটাতে তাকে সাহায্য করেছে পুরোহিত।

ইমরানা মাত্র সেভেন গ্রেড পর্যন্ত পড়াশোনা করেছে। বিতর্কিত নাগরিকত্ব আইন নিয়ে সংঘর্ষে আহতদের সাহায্যে এগিয়ে এসেছিলেন তিনি।

করোনার এই মহামারির সময়ও এগিয়ে এসেছেন ইমরানা। তৈরি করেছেন ৪ সদস্যের ‘করোনা যোদ্ধা’ নামের একটি দল।

তারা কাজ করছে মোস্তাফাবাদ, চান্দবাগ, নেহেরু বিহার, শিব বিহার, বাবু নগরের অলিগলি জুড়ে। তাদের কাছে মসজিদের আযান এবং মন্দিরের ঘণ্টার মধ্যে কোনো পার্থক্য নেই।

ইমরানা জানান, আমি ভারতের অসাম্প্রদায়িক সংস্কৃতিকে তুলে ধরতে চাই। আমি একটা বার্তা দিতে চাই, তা হলো আমরা সবাই এক আছি এবং এক সাথে আছি।