চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

চ্যানেল আইতে ‘আড়ং ডেইরি-চ্যানেল আই বাংলার গান’র মূল পর্ব

আজ থেকে শুরু হচ্ছে লোকসঙ্গীতের রিয়ালিটি শো আড়ং ডেইরি-চ্যানেল আই বাংলার গানের মূল পর্বের প্রচার। চ্যানেল আইয়ের ৭টার সংবাদের পর প্রধান দুই বিচারকের উপস্থিতিতে সন্ধ্যা ৭টা ৫০ মিনিটে প্রচারিত হবে আড়ং ডেইরি চ্যানেল আই বাংলার গান এর মূল পর্বের প্রথম এপিসোড। পাওয়ার্ড বাই ইউনিভার্সাল ফুড।

‘বাংলার মাটি, মানুষের গান’ প্রতিপাদ্য নিয়ে হারিয়ে যাওয়া লোক গান নতুন প্রজন্মের কাছে পৌঁছে দিতে লোকসঙ্গীতের বিশাল সম্ভার নিয়ে প্রথমবারের মতো চ্যানেল আইয়ের পর্দায় প্রচারিত হবে রিয়েলিটি শো আড়ং ডেইরী-চ্যানেল আই বাংলার গান।

সারাদেশের নিবন্ধিত ৫৫ হাজার প্রতিযোগীর মধ্য থেকে মূল পর্বে লড়বে ধাপে ধাপে নির্বাচিত হওয়া ৩০ প্রতিযোগী প্রধান বিচারকদের সামনে তুলে ধরবেন তাদের সেরা পারফর্মেন্স।

প্রধান বিচারক রেজওয়ানা চৌধুরী বন্যা জানান, লোকসঙ্গীতের মৌলিকতা, নিজস্বতা, বৈশিষ্ট্য প্রতিযোগীদের ফিউশন গানের মধ্যে থাকছে কিনা সেটি লক্ষ্য করবেন তিনি। বলেন, ‘লোকগান যদি নিজের বৈশিষ্ট্য হারিয়ে ফেলে তবে আমাদের জন্য সেটি কিন্তু খুব সুখবার্তা নয়।’

আরেক প্রধান বিচারক আইয়ুব বাচ্চুর ভাষায়, ‘ভাবের গানগুলো ভাবের মানুষেরাই বিচার করবেন। তাদেরকেই অতিথি শিল্পী হিসেবে আনা হবে বলে জানান তিনি। এদের মধ্যে টুনটুন বাউল, মমতাজ, রব ফকিরসহ আরো অনেক লোকশিল্পী, যারা এই মাটির সঙ্গে মিশে আছেন। ‘তারাই ঠিক করবেন প্রতিযোগীদের মধ্যে কারা লোকসঙ্গীতকে এগিয়ে নিয়ে যাবে। তাদের নেয়া নম্বরের ওপরই আমাদের নম্বর নির্ভর করবে।’

মূল পর্বের প্রতি পর্বে একজন করে অতিথি বিচারক হিসেবে থাকবেন লোকগানের পুরোধা ব্যক্তিত্বরা।

Advertisement

অতিথি বিচারক টুনটুন বাউলের মতে, এসব আয়োজন না হলে শিল্পী তৈরি হবে না। ‘দেশে শিল্পী তৈরির একটা খাত থাকতে হবে না? আমি মনে করি এই খাত হলো চ্যানেল আই।’ একজন শিল্পীকে শিল্পী হতে হলে তার গানের তাল, লয়, ভাষা ঠিক হতে হয়। কণ্ঠ একটু এদিক সেদিক হলেও তাল, লয়, ভাষা ভুল হলে চলবে না। এগুলোই এখানে বিচার করা হবে বলে জানান টুনটুন বাউল।

লোকসঙ্গীতের এই গানের লড়াইয়ে আধুনিক উপস্থাপনায় বাংলার শেকড়ের গানগুলো বিশ্ব দরবারে তুলে ধরতে ৩০ প্রতিযোগী থাকবেন ফুয়াদ নাসের বাবু ও তার দল, বাপ্পা অ্যান্ড ফ্রেন্ডস এবং জলের গান – এই তিন ব্যান্ডের মেন্টর বিচারকদের অধীনে।

এ পর্যন্ত পাওয়া প্রতিযোগীরা খুবই প্রতিভাবান বলে জানান ফুয়াদ নাসের বাবু। তারা ভবিষ্যতে আরো দূর যাবে বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি। একইভাবে প্রতিযোগীরা বাংলাদেশের সঙ্গীত জগতে জায়গা করে নেবে, এই কামনা করেন বাপ্পা মজুমদার।

রাহুল আনন্দ সবার কাছে আবেদন জানান, যেনো এই ৩০ জনই হোক বা সেই ৫৫ হাজার, তারা যেনো হারিয়ে না যায়, গান গায়। ‘আমরা যেনো তাদের শিল্পীস্বত্ত্বাকে জাগিয়ে তুলতে পারি যা তাদের মধ্যে আছে।’

এফডিসিতে মূল পর্বের শুটিং এর ফাঁকে পরিদর্শনে হাজির হয়েছিলেন চ্যানেল আইয়ের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ফরিদুর রেজা সাগর ও অন্য অতিথিরা। ব্যবস্থাপনা পরিচালক প্রতিযোগীদের বলেন, ‘এমন গান গেয়ে দেখাও যাতে শুধু বাংলাদেশের জনগণ নয়, সারা পৃথিবীর মানুষ এর জন্য চ্যানেল আই দেখে। আমরা তোমাদের নিয়ে গর্ব করতে চাই।’

আজ সোমবার সন্ধ্যা ৭টা ৫০ মিনিটে প্রচারিত হবে ইজাজ খান স্বপনের পরিচালনায় আড়ং ডেইরি-চ্যানেল আই বাংলার গানের মূল পর্বের প্রথম অংশ। পাওয়ার্ড বাই ইউনিভার্সাল ফুড লিমিটেড।