চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

কুবির ৭ শতাধিক ফেসবুক ব্যবহারকারীর তথ্য ফাঁস

ফরহাদুর রহমান: একটি লো-লেভেল হ্যাকিং প্ল্যাটফর্ম সম্প্রতি বিশ্বের ১০৬টি দেশের প্রায় ৫৩ কোটি ফেসবুক ব্যবহারকারীর তথ্য ফাঁস করে প্রযুক্তি বিশ্বে সাড়া ফেলে দিয়েছে। ফাঁস হওয়া ওই তালিকায় কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় (কুবি) পরিবারের প্রায় ৭২২ জনের ফেসবুক অ্যাকাউন্ট রয়েছে।

ঢাকার ইউনিভার্সিটি অব স্কলার্সের কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলোজি বিভাগের কিছু শিক্ষার্থীর সংগ্রহ করা তালিকা থেকে এসব ব্যবহারকারীদের তথ্য জানা গেছে। একাউন্ট খোঁজার ক্ষেত্রে তারা ‘Comilla University, comilla university এবং কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়’ কী-ওয়ার্ড ব্যবহার করেছে।

বিজ্ঞাপন

এই তালিকায় কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের সংশ্লিষ্ট পরিচয় প্রোফাইলে উল্লেখ রয়েছে এমন ৭২২ জন ফেসবুক ব্যবহারকারী রয়েছেন। তালিকায় ব্যাবহারকারীদের ফোন নম্বর, ফেসবুক আইডি, পুরো নাম ঠিকানা, জন্ম তারিখ, প্রোফাইল ও কিছু ক্ষেত্রে ই-মেইল ঠিকানা উল্লেখ করা হয়েছে। তালিকায় বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও কর্মকর্তা-কর্মচারীরা রয়েছেন।

বিজ্ঞাপন

তালিকায় নাম থাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষক মাহমুদুল হাসান বলেন, আমি আগে থেকেই বিভিন্নভাব তথ্য ফাঁস হওয়ার বিষয়টি জানতাম। তথ্য প্রযুক্তির এই সময়ে বর্তমানে কারো তথ্যই আসলে নিরাপদ নয়। সবাইকে এসব বিষয়ে সচেতন হতে হবে। বিশেষ করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যক্তিগত তথ্য দেওয়ার ক্ষেত্রে বিশেষ নজর দেয়া উচিত।

তথ্য ফাঁসের বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের কম্পিউটার বিজ্ঞান ও প্রকৌশল বিভাগের প্রধান পার্থ চক্রবর্তী বলেন, মূলত ৩ টি কারণে ফেইসবুক হ্যাক হতে পারে। মাঝে মাঝে আমাদের কাছে অনেক লিংক আসে। সেগুলোতে ঢুকলে ক্লোন করার মাধ্যমে আমাদের তথ্য হ্যাকারদের হাতে চলে যায়। আরেকটি হচ্ছে অনেকে নিজের নামে বা ফোন নাম্বার দিয়ে পাসওয়ার্ড দেন। এতে করেও তথ্য চুরি হতে পারে। আরেকটা বিষয় হচ্ছে অনেক সময় ভাইরাসের মাধ্যমে তথ্য হ্যাকারদের কাছে চলে যেতে পারে। এসব বিষয়ে সাবধান থাকতে হবে। আমাদের পাসওয়ার্ড কিন্তু ফেইসবুক কর্তৃপক্ষও জানে না। আমরা নিজেরা ব্যবহারের ক্ষেত্রে সচেতন থাকি তাহলে কোনভাবেই হ্যাকারদের কাছে আমাদের তথ্য যাবে না।

সম্প্রতি ফাঁস হওয়া এই তালিকায় বাংলাদেশের ৩৮ লাখ ফেসবুক ব্যবহারকারীর তথ্য আছে বলে জানা গেছে। বিশ্বের ১০৬ দেশের ৫৩ কোটি ৩০ লাখ ফেসবুক ব্যবহারকারীর নাম রয়েছে হ্যাকিংয়ের তালিকায়। এদিকে অনেকটা বিনা খরচে এসব তথ্য অনলাইনে বিক্রি করা হচ্ছে বলে আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে উল্লেখ করা হয়েছে।