চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

করোনাভাইরাস: বিশ্বব্যাপী মৃতের সংখ্যা ৩৭ লাখ ৩৬ হাজার

করোনাভাইরাসে এখনও বিপর্যস্ত সারাবিশ্ব। এতে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা যেন থামছেই না। গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বজুড়ে করোনায় আক্রান্ত হয়ে আরও ৯ হাজার মানুষের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে ভাইরাসটি শনাক্ত হয়েছে আরও ৩ লাখ ৯০ হাজারের বেশি মানুষের দেহে।

করোনাভাইরাস সংক্রমণসহ এ বিষয়ে হিসাব রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটারস থেকে এসব তথ্য জানা যায়। সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় সারা বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৯ হাজার মানুষ। অর্থাৎ আগের দিনের তুলনায় মৃত্যু কমেছে হাজারের কম। এতে বিশ্বজুড়ে মৃতের সংখ্যা পৌঁছেছে ৩৭ লাখ ৩৬ হাজার ৯২ জনে।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

একই সময়ে ভাইরাসটিতে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৩ লাখ ৯৩ হাজারের বেশি মানুষ, যা আগের দিনের তুলনায় প্রায় ২৪ হাজার কম। নতুন করে আক্রান্তদের নিয়ে মহামারির শুরু থেকে ভাইরাসটিতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়ালো ১৭ কোটি ৩৭ লাখ ১১ হাজার ৮১৯ জনে।

করোনাভাইরাসে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত দেশ যুক্তরাষ্ট্র। দেশটিতে এখন পর্যন্ত ৩ কোটি ৪২ লাখ ৪ হাজার ৩৭৪ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছে। মারা গেছেন ৬ লাখ ১২ হাজার ২০৩ জন।

বিজ্ঞাপন

ল্যাটিন আমেরিকার দেশ ব্রাজিল করোনায় আক্রান্তের দিক থেকে তৃতীয় ও মৃত্যুর সংখ্যায় তালিকার দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে। দেশটিতে মোট শনাক্ত রোগী এক কোটি ৬৯ লাখ ৭ হাজার ৪২৫ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ৪ লাখ ৭২ হাজার ৬২৯ জনের।

করোনায় আক্রান্তের তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে এশিয়ার দেশ ভারত। তবে ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃতের সংখ্যার তালিকায় দেশটির অবস্থান তৃতীয়। দেশটিতে মোট আক্রান্ত দুই কোটি ৮৮ লাখ ৮ হাজার ৩৭২ জন এবং মারা গেছেন ৩ লাখ ৪৬ হাজার ৭৮৪ জন।

এছাড়া এখন পর্যন্ত ফ্রান্সে ৫৭ লাখ ৭ হাজার ৬৮৩ জন, রাশিয়ায় ৫১ লাখ ১৭ হাজার ২৭৪ জন, যুক্তরাজ্যে ৪৫ লাখ ১১ হাজার ২৬৯ জন, ইটালিতে ৪২ লাখ ৩০ হাজার ১৫৩ জন, তুরস্কে ৫২ লাখ ৮২ হাজার ৫৯৪ জন, স্পেনে ৩৬ লাখ ৯৭ হাজার ৯৮৭ জন, জার্মানিতে ৩৭ লাখ ৬ হাজার ৯৩৪ জনের দেশে করোনা শনাক্ত হয়েছে।

অন্যদিকে করোনায় আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত ফ্রান্সে এক লাখ ৯ হাজার ৯৭৩ জন, রাশিয়ায় এক লাখ ২৩ হাজার ৪৩৬ জন, যুক্তরাজ্যে এক লাখ ২৭ হাজার ৮৩৬ জন, ইটালিতে এক লাখ ২৬ হাজার ৪৭২ জন, তুরস্কে ৪৭ হাজার ৬৮ জন, স্পেনে ৮০ হাজার ১৯৬ জন, জার্মানিতে ৮৯ হাজার ৮২৫ জন মারা গেছেন।