চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

আলোর পথযাত্রী হওয়ার আহ্বান

রমনা বটমূলে বর্ষবরণের প্রধান অনুষ্ঠানে মানুষকে আলোর পথযাত্রী হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন ছায়ানটের সভাপতি সনজীদা খাতুন। সকলকে নববর্ষের শুভেচ্ছা জানিয়ে তিনি বলেন, প্রকৃত মানুষ হতে সাধনার জন্য শপথের দিন আজ।

বটমূলের সোয়া দুই ঘণ্টার অনুষ্ঠানের পুরোটা সময়ই সনজীদা খাতুন মঞ্চে ছিলেন। অনুষ্ঠানের শেষদিকে কথা বলেন তিনি। এবার তার বক্তব্য গতবারের তুলনায় অনেকটা সংক্ষিপ্ত ছিলো।

সনজীদা খাতুন বলেন, ধর্ম আমাদের ধারণ করে রাখে। এ কথা আপনার আমার সবারই জানা আছে। ধর্ম আবার মানুষের স্বভাবও বটে। এই স্বভাব ধর্মের নীতিবোধ আমাদের শান্তির পথে আহ্বান করে। নীতিবিহীন আচরণ ভাই-বোন-বন্ধু-সমাজ-দেশ আর বিশ্বের শান্তির প্রতিবন্ধক।

তিনি বলেন, আমরা শান্তি চাই, সম্প্রীতি চাই। সুখে শান্তিতে বাঁচবার মানবিক অধিকার চাই। চাই মানুষ হিসেবে আমাদের সকল অধিকারের সুরক্ষা। মানুষের শান্তিপূর্ণ জীবনযাত্রা বিরুদ্ধ যা কিছু তা বস্তুত আবর্জনা।

Advertisement

এরপর তিনি ‘এসো, এসো হে বৈশাখ’ বলার শিল্পীরা প্রিয় গানটি পরিবেশন করেন। এর মধ্য দিয়ে ছায়ানটের বর্ষবরণের অনুষ্ঠানে ১৪ বছর পর ‘এসো হে বৈশাখ’ গানটি গাওয়া হয়। ছায়ানটের অনুষ্ঠানে সর্বশেষ গানটি গাওয়া হয়েছিলো ২০০০ সালে।

পরে আবার কথা বলেন সনজীদা খাতুন।

তিনি বলেন, আমরা চাই নববর্ষের প্রভাতে সকল আবর্জনা দূর হয়ে যাক। সামনের দিনগুলো স্বাধিকার সমৃদ্ধ প্রশান্ত জীবনের প্রতিশ্রুতি নিয়ে আসুক। মনে রাখতে হবে সেই পরিবেশ সৃষ্টির দায়ও আমাদের সকলের। পরবর্তী প্রজন্মকে নতুন উদ্যমে জাগিয়ে তোলার দায়িত্ব আপনাদের-আমাদের। পরবর্তী যারা তারা যেন আলোর পথযাত্রী হয়ে উঠতে পারে।

সনজীদা খাতুন বলেন, উপযোগী মানবিক সমাজ গড়তে হবে আমাদের। মানবজাতিকে সত্য ন্যায় কল্যাণের পথে চলে প্রকৃত মানুষ হয়ে ওঠার সাধনা করতে হবে। সেই অভিযাত্রার শপথ নেবার দিন আজ। আসুন, আমরা সেই আলোর পথে চলবার শপথ নেই। শুভ নববর্ষ।