চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

অবশেষে মাস্ক পরতেই হলো ট্রাম্পকে

মাস্ক না পরাটা তার কাছে ছিল বিরাট এক বীরত্বের ব্যাপার। সেই বীরত্ব প্রকাশ্যেই জাহির করতেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। তিনি বলতেন, তার বিরুদ্ধে রাজনীতি করতে কিছু মানুষ মাস্ক পরে!

নিজের সেই অবস্থান থেকে ১৮০ ডিগ্রি ঘুরে মাস্ক পরা শুরু করলেন ট্রাম্প। স্থানীয় সময় শনিবার আহত সেনাকর্মী ও অসুস্থ স্বাস্থ্যকর্মীদের দেখতে গিয়েছিলেন তিনি। সেসময় প্রথমবারের মতো তাকে প্রকাশ্যে মাস্ক পরতে দেখা যায়।

বিজ্ঞাপন

বিবিসি জানিয়েছে, ওয়াশিংটনের ওয়াল্টার রিড ন্যাশনাল মিলিটারি মেডিকেল সেন্টারে আহত সেনাকর্মী ও অসুস্থ স্বাস্থ্যকর্মীদের দেখতে গিয়েছিলেন ট্রাম্প।

বিজ্ঞাপন

হেলিকপ্টারে ওঠার আগে হোয়াইট হাউস থেকে বেরিয়ে তিনি বলেন, ‘আমি মাস্কের বিরুদ্ধে ছিলাম না, তবে আমি বিশ্বাস করি মাস্ক পরার একটা সময় এবং নির্দিষ্ট জায়গা আছে।’

বিজ্ঞাপন

এর আগে মাস্ক না পরায় ট্রাম্পের প্রতিদ্বন্দ্বী ডেমোক্রেটিক দলের প্রেসিডেন্ট প্রার্থী জো বাইডেন তাকে বিদ্রুপ করেন।

এ দিন প্রকাশ্যে মাস্ক পরা নিয়ে ট্রাম্প বলেন, ‘আমি মনে করি যদি কেউ হাসপাতালে যায়, কোনো নির্দিষ্ট কাজে, অর্থাৎ যেখানে প্রচুর সেনা সদস্য এবং স্বাস্থ্যকর্মী আছে। তাকে অবশ্যই মাস্ক পরতে হবে।’

তবে এই সফরে পুরোটা সময় তিনি মাস্ক পরে থাকেননি। সামরিক হাসপাতালে মাস্ক পরে গেলেও, পরে তাকে মাস্ক ছাড়াই দেখা যায়।

করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের শুরু থেকে মাস্ক নিয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার গাইডলাইনকে ক্রমাগত উপেক্ষা করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। এ নিয়ে নানা সমালোচনার পরও তিনি এতদিন মাস্ক পরেননি।

বার বার বলেছেন, কোভিড-১৯ সংক্রমণ ঠেকাতে মুখে মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক নয়। এটা মানুষের ইচ্ছার ওপর ছেড়ে দেয়া উচিৎ।