ফিলিস্তিন-ইসরায়েল ইস্যুতে নিজেদের অবস্থান ব্যাখ্যা করলো চীন

ফিলিস্তিন-ইসরায়েলের বর্তমান যুদ্ধবিরতি ও সহিংসতা বন্ধ করা সবচেয়ে জরুরি ও অগ্রাধিকার কাজ বলে মনে করে চীন। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) সুইজারল্যান্ডের জেনিভায় ফিলিস্তিনের অধিকৃত ভূখণ্ডের স্বাস্থ্য পরিস্থিতি-বিষয়ক বিশেষ সম্মেলন রোববার ১০ ডিসেম্বর আয়োজন করে।

জাতিসংঘের জেনিভা কার্যালয়ে চীনের স্থায়ী প্রতিনিধি ও সুইজারল্যান্ডের অন্যান্য আন্তর্জাতিক সংস্থায় নিযুক্ত রাষ্ট্রদূত ছেন সিয়ু সম্মেলনে চীনের অবস্থান ব্যাখ্যা করেছেন।

ছেন সিয়ু বলেন, বর্তমান যুদ্ধবিরতি ও সহিংসতা বন্ধ করা সবচেয়ে জরুরি ও অগ্রাধিকার কাজ। বেসামরিক মানুষের জীবন ও স্বাস্থ্যের অধিকার রক্ষার জন্য চীন আন্তর্জাতিক সমাজ-বিশেষ করে ফিলিস্তিন-ইসরায়েল সমস্যায়ে প্রভাবশালী দেশগুলোকে স্থায়ী যুদ্ধবিরতির জন্য কাজ করার আহ্বান জানিয়েছে। তা ছাড়া স্বাস্থ্য সংকট সমাধানও গুরুত্বপূর্ণ। সব পক্ষের উচিত চিকিৎসাকর্মী ও স্বাস্থ্য ব্যবস্থাপনার নিরাপত্তা নিশ্চিত করা। হু ও অন্যান্য মানবিক সংস্থার কাজে সমর্থন করা এবং প্রয়োজনীয় ওষুধ ও চিকিৎসা সরঞ্জাম সরবরাহ করা।

তিনি আরও বলেন, ‘দুই রাষ্ট্র তত্ত্ব’ চলমান সমস্যা সমাধানের মৌলিক উপায়। ফিলিস্তিন ও ইসরায়েলকে দ্রুত শান্তি আলোচনা পুনরুদ্ধার করা উচিত।

ছেন সিয়ু বলেন, সংঘর্ষের পর চীন বিভিন্ন চ্যানেলে ফিলিস্তিন ও জাতিসংঘ সংস্থাকে অর্থ, খাদ্য, ওষুধ ইত্যাদি সাহায্য দিয়েছে এবং অব্যাহতভাবে জরুরি মানবিক সাহায্য দেবে।

জাতিসংঘের জেনিভা কার্যালয়ফিলিস্তিন-ইসরায়েল ইস্যুবিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থারাষ্ট্রদূত ছেন সিয়ু