বাংলাদেশ-নিউজিল্যান্ড: পরিসংখ্যান কী বলছে

টুর্নামেন্টে নিজেদের প্রথম ম্যাচে আফগানিস্তানের বিপক্ষে জয় পেলেও দ্বিতীয়টিতে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে বড় ব্যবধানে হেরেছে সাকিব আল হাসানের দল। ওয়ানডে বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে যাওয়ার রাস্তা পরিষ্কার রাখতে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে জেতা বাংলাদেশের জন্য খুব জরুরি। তাই মাঠের লড়াইয়ের আগে দেখে নেয়া যাক পরিসংখ্যানে কোন দল এগিয়ে আছে।

চেন্নাইয়ের এমএ চিদাম্বরম স্টেডিয়ামে শুক্রবার বাংলাদেশ সময় দুপুর ২টা ৩০ মিনিটে শুরু হবে টাইগার-কিউই লড়াই। বাংলাদেশের বিপক্ষে এগিয়ে থেকেই শুরু করবে নিউজিল্যান্ড। বিশ্বকাপের আগে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে ২-০ ব্যবধানে জিতেছিল সফরকারী দলটি। ২০০৮ সালের পর বাংলাদেশের মাঠে মাঠে এটি কিউইদের প্রথম ওয়ানডে সিরিজ জয়।

ওয়ানডেতে এখন পর্যন্ত দুদলের ৪১ বারের দেখায় জয়ের পাল্লা ভারি নিউজিল্যান্ডের। কিউইদের ৩০ জয়ের বিপরীতে বাংলাদেশের ১০টিতে। অন্যটি পরিত্যক্ত হয়েছে। এছাড়া ১৯৯৯ সালে বাংলাদেশের বিশ্বকাপ যাত্রার পর থেকে ২০১১ আসর ছাড়া সব আসরেই নিউজিল্যান্ডের সঙ্গে দেখা হয়েছে বাংলাদেশের। বিশ্বকাপে পাঁচবারের দেখায় সবগুলোতেই হেরেছে লাল-সবুজের প্রতিনিধিরা।

২০১৯ সালের বিশ্বকাপে নিউজিল্যান্ডকে হারানোর দারুণ সুযোগ পেলেও কাজে লাগাতে পারেনি বাংলাদেশ। অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসনকে রান আউটের সুযোগ হাতছাড়া করেন উইকেটরক্ষক মুশফিকুর রহিম। শেষ পর্যন্ত ম্যাচটি ২ উইকেটে হেরে যায় বাংলাদেশ। জীবন পেয়ে ৪০ রানের ইনিংস খেলেন উইলিয়ামসন। এবার চোট কাটিয়ে বাংলাদেশের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে এবারের বিশ্বকাপ অভিযান শুরু করবেন ৩৩ বর্ষী ব্যাটার।

এমএ চিদাম্বরম স্টেডিয়ামওয়ানডে বিশ্বকাপ ২০২৩চেন্নাইনিউজিল্যান্ডবাংলাদেশমুশফিকলিড স্পোর্টস