ঢাকার বইমেলায় থাকবে কলকাতার স্টল

প্রতিবছর কলকাতা আন্তর্জাতিক বইমেলায় বিদেশের স্টলগুলির মধ্যে সবচেয়ে বেশি জায়গা দেওয়া হয় বাংলাদেশের প্যাভিলিয়নকে। ২০২৩ এর কলকাতা বইমেলাতেও বাংলাদেশের ৭১ জন প্রকাশক অংশ নেন। বিপরীতে কলকাতার কোনো স্টলকে বাংলাদেশের বইমেলায় আমন্ত্রণ জানানো হয় না, এমন অভিযোগ বহুদিন ধরেই।

এ বিষয়ে উদ্যোগ নিতে বাংলাদেশ পুস্তক প্রকাশক ও বিক্রেতা সমিতিকে অনুরোধ জানায় কলকাতার পাবলিশার্স ও বুকসেলার্স গিল্ড। তারই প্রেক্ষিতে জানা গেছে আগামিতে বাংলাদেশের বইমেলাতে থাকবে কলকাতার স্টল। এমন খবরই প্রকাশ করলো কলকাতার ‘খবর ৩৬৫ দিন’।

কলকাতার পাবলিশার্স ও বুকসেলার্স গিল্ডের সভাপতি সুধাংশু শেখর দের বরাতে গণমাধ্যমটি জানিয়েছে, ঢাকার বইমেলাতেও থাকবে পশ্চিমবাংলার গিল্ডের স্টল। সে বিষয়ে সিদ্ধান্ত পাকাপোক্ত করতে ইতোমধ্যে ঢাকায় পৌঁছেছেন গিল্ডের সভাপতি এবং প্রকাশক ত্রিদিব কুমার চট্টোপাধ্যায়।

শুক্রবার (১৮ আগস্ট) ‘বইমেলা এবং সাহিত্য উৎসব’ এর একটি বৈঠক হবে। সেখানেই বাংলাদেশের বইমেলা নিয়ে সমস্ত বিষয় চূড়ান্ত হবে। আন্তজাতিক বইমেলার বর্তমান কমিটির আহ্বায়ক মাজহারুল ইসলামের নেতৃত্বেই এই সভা অনুষ্ঠিত হবে।

এই বিষয়ে গিল্ডের সভাপতি সুধাংশু দে ৩৬৫ দিনকে জানান, ‘এবার বাংলাদেশের বইমেলায় থাকবে কলকাতার বইমেলা। তাদের আমন্ত্রণেই ঢাকায় এসেছি আমরা। শুক্রবার একটি চূড়ান্ত একটি বৈঠক হবে। সেখানেই এসব বিষয় নিয়ে সিদ্ধান্ত আসবে।’

কলকাতাঢাকাপ্রকাশকবইমেলাস্টল