পরিকল্পিতভাবে পোশাক খাতকে অস্থিতিশীল করে তোলা হচ্ছে: প্রধানমন্ত্রী

বিজ্ঞাপন

উস্কানি সম্পর্কে গার্মেন্টস শ্রমিকদের সচেতন হওয়ার কথা উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, গার্মেন্টস শ্রমীকদের আন্দোলনে লাশ ফেলে অস্থিরতা সৃষ্টি করতে চায় এক দল। এখানে মূলত পরিকল্পিতভাবে পোশাক খাতকে অস্থিতিশীল করে তোলা হচ্ছে।

বিজ্ঞাপন

বৃহস্পতিবার ৯ নভেম্বর সন্ধ্যায় গণভবনে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সভায় এসব কথা বলেন তিনি।

আগুন সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তোলার আহ্বান জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, দেশবাসীকেই সিদ্ধান্ত নিতে হবে, তারা জঙ্গি-অগ্নিসন্ত্রাস, দুর্নীতিবাজ চায়, না-কি উন্নয়নের ধারাবাহিকতা চায়।

আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে তফসিল ঘোষণার ঠিক আগে দলের সর্বোচ্চ নীতিনির্ধারণী ফোরাম, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের এই বৈঠক। তিন মাস পর প্রধানমন্ত্রীর সরকারি বাসভবন গণভবনে অনুষ্ঠিত বৈঠকে আলোচনা হয়, জাতীয় নির্বাচন ঘিরে দলের বিভিন্ন খুটিনাটি বিষয়ে।

বিজ্ঞাপন

সূচনা বক্তব্যে প্রধানমন্ত্রী বলেন, বিএনপি-জামায়াত আবার আগুন সন্ত্রাস শুরু করেছে। যারা গ্রেপ্তার নিয়ে প্রশ্ন তুলছে, তাদেরকে জনগণের জানমাল রক্ষায় সরকারের দায়িত্বের কথা স্মরণ করিয়ে দেন প্রধানমন্ত্রী।

গত ১৪ বছরে তৈরি পোশাক শ্রমিকদের বেতন বাড়ানোর উদাহরণ টেনে সরকার প্রধান, উস্কানি সম্পর্কে শ্রমিকদের সচেতন হতে বলেন। এসময় জঙ্গি ও অগ্নিসন্ত্রাসীদের প্রতিরোধ করতে জনগণের প্রতি আহ্বান জানান আওয়ামী লীগ সভাপতি।

নীতি আদর্শ ভুলে ডান ও বামপন্থী রাজনীতিবিদরা এক হয়েছে উল্লেখ করে শেখ হাসিনা তাদের কাছে প্রশ্ন রাখেন, আওয়ামী লীগের অপরাধ কী?

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সভাপরিকল্পিতভাবে পোশাক খাতকে অস্থিতিশীল করে তোলা হচ্ছেপ্রধানমন্ত্রী