বন উজাড় বন্ধে একজোট হয়েছে অ্যামাজন বেষ্টিত দেশগুলো

বন উজাড় বন্ধ করার জন্য সর্সবম্মত লক্ষ্য পূরণের জন্য একত্রিত হয়েছে বিরাট অ্যামাজন জঙ্গলের সীমান্ত ভাগ করে নেওয়া আটটি দেশ। গত ১৪ বছরের মধ্যে এই প্রথম এই ধরনের সমাবেশ অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

বিবিসি জানিয়েছে, গতকাল (৮ আগস্ট) মঙ্গলবার থেকে অ্যামাজন জঙ্গলের সীমান্ত ভাগ করে নেওয়া আটটি দেশের প্রতিনিধিরা ব্রাজিলের বেলেম শহরে এই বিষয়ে দুই দিনের একটি শীর্ষ সম্মেলনে মিলিত হয়েছে। সম্মেলনটিকে অ্যামাজন সংরক্ষণ ও জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবেলার প্রচেষ্টার একটি অংশ হিসেবে দেখছে অংশগ্রহণকারীরা।

এই শীর্ষ সম্মেলনের আগে, ব্রাজিলের রাষ্ট্রপতি লুইজ ইনাসিও লুলা দা সিলভা ২০৩০ সালের মধ্যে বন উজাড় বন্ধ করার একটি সাধারণ লক্ষ্যের আহ্বান জানান। এই বিষয়ক একটি নীতি ব্রাজিলে তার সরকার ইতিমধ্যেই গ্রহণ করেছে৷ বিশ্বের বৃহত্তম রেইনফরেস্ট অ্যামাজনের প্রায় ৬০ শতাংশই ব্রাজিলে অবস্থিত।

সমাবেশে প্রতিনিধিত্বকারী অন্যান্য দেশগুলো হল বলিভিয়া, কলম্বিয়া, ইকুয়েডর, গায়ানা, পেরু, সুরিনাম এবং ভেনিজুয়েলা। বেলেমের সম্মেলনে একটি যৌথ বিবৃতিতে বলা হয়েছে, নতুন জোটের লক্ষ্য হবে অ্যামাজনকে তার পূর্বের রূপে ফেরত নিয়ে আসা।

এছাড়াও পানি ব্যবস্থাপনা, স্বাস্থ্য, টেকসই উন্নয়ন এবং বৈশ্বিক জলবায়ু পরিবর্তনের মতো বিষয়গুলো সম্মেলনে সাধারণ আলোচনায় স্থান পায়।

অ্যামাজন জঙ্গলবন উজাড়ব্রাজিল