হল না ছাড়লে পুলিশ আসবে: জাবি কর্তৃপক্ষ

নির্দেশ সত্ত্বেও হল না ছাড়ায় উপাচার্যের অপসারণের দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের প্রতি কঠোর হুঁশিয়ারি দিয়ে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় (জাবি) কর্তৃপক্ষ বলেছে, বিকাল সাড়ে ৩টার মধ্যে হল না ছাড়লে পুলিশের সহযোগিতা নেয়া হবে।

বুধবার দুপুরে প্রভোস্ট কমিটির সভা শেষে এ সিদ্ধান্তের কথা জানানো হয়।

দুর্নীতির অভিযোগে উপাচার্যবিরোধী আন্দোলনের মুখে মঙ্গলবার অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করা হয় জাবি। পাশাপাশি হল ত্যাগেরও নির্দেশ দেওয়া হয়। কিন্তু তা না মেনে আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছেন শিক্ষার্থীদের একটি অংশ।

তাদের দাবি, উপাচার্যের অপসারণ না হওয়া পর্যন্ত মাঠ ছাড়বেন না তারা। এ জন্য বুধবার সকাল থেকেই বিক্ষোভ মিছিল ও সংহতি সমাবেশ করছেন আন্দোলনকারীরা।

অভিযোগ উঠেছে, হল ছাড়ার নির্দেশের পরও হলে অবস্থান করায় মেয়েদের হলে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন তালা লাগিয়ে দেয়। তবে বিক্ষোভের মুখে পরে সেই তালা খুলে দেয় কর্তৃপক্ষ।

এদিন ক্যাম্পাসে আসেনি জাবি শাখা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা।

সভাপতি মো. জুয়েল বলেন, প্রশাসনিকভাবে হল ছাড়ার নির্দেশ দেয়ার পরপরই আমরা হল ছেড়ে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস থেকে বের হয়ে এসেছি। প্রশাসনের পক্ষ থেকে পরবর্তী নির্দেশনা না আসা পর্যন্ত আমরা আর বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে আসবো না।

মঙ্গলবার উপাচার্যের পদত্যাগের দাবিতে টানা আন্দোলনরত ছাত্র-শিক্ষকদের সাথে উপাচার্যপন্থী ছাত্র-শিক্ষকদের হাতাহাতির পর গভীর রাত পর্যন্ত উপাচার্যবিরোধীরা তার বাসার সামনে অবস্থান নেন।

এরই মধ্যে পরিস্থিতি শান্ত করতে অনির্দিষ্টকালের জন্য বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ ঘোষণা করে কর্তৃপক্ষ। এমন সিদ্ধান্তের প্রতিবাদ ও নতুন কর্মসূচি ঘোষণা করে হলে ফেরেন আন্দোলনকারীরা।

উপাচার্যপন্থীদের দাবি, আলোচনার পরিবর্তে আন্দোলনাকরীদের একগুয়েমির কারণে বিশ্ববিদ্যালয়ের এই অচলাবস্থা।

উপাচার্য অপসারণজাবিজাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়