সড়ক দুর্ঘটনা: নরসিংদীতে স্কুলছাত্র, নাটোরে অটোরিকশা চালক নিহত

নরসিংদী ও নাটোরে সড়ক দুর্ঘটনায় স্কুলছাত্রসহ ২ জন নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে আরও ৩ জন।

বিজ্ঞাপন

নরসিংদীর বেলাবতে কাভার্ড ভ্যান চাপায় রাব্বি মিয়া (১৩) নামে এক স্কুলছাত্র নিহত হয়েছে। এ সময় আপন নামে তার এক সহপাঠী আহত হয়। বৃহস্পতিবার সকালে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের বেলাব উপজেলার বারৈচা বাসস্ট্যান্ডে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত রাব্বি মিয়া বেলাব উপজেলার হোসেন নগর পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেণির ছাত্র ও হোসেন নগর গ্রামের ফরিদ মিয়ার ছেলে। বেলাব থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফখরুদ্দিন ভূইঁয়া এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, রাব্বি মিয়া ও আপন স্কুল এলাকা থেকে খেলাধুলা করতে বাইসাইকেল যোগে মহাসড়ক পার হচ্ছিল। এসময় ভৈরব থেকে ঢাকাগামী একটি কাভার্ড ভ্যান তাদেরকে চাপা দিলে ঘটনাস্থলেই রাব্বির মৃত্যু হয়।

আহত অবস্থায় তার সহপাঠীকে ভৈরবের একটি হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। তবে সে আশংকামুক্ত বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

ঘাতক কাভার্ড ভ্যানসহ চালককে আটক করেছে হাইওয়ে পুলিশ।

অন্যদিকে নাটোরের ডাল সড়ক এলাকায় মাটিবাহী ট্রাক্টরের চাপায় রফিক নামে এক অটোরিকশা চালক নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে ইয়ামিন ও জাহাঙ্গীর নামে দুই যাত্রী।

বৃহস্পতিবার সকাল ১১ টার দিকে নাটোর সদর উপজেলার ডাল সড়ক এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত রফিক সিংড়া উপজেলার সাঐল গ্রামের জালাল উদ্দিনের ছেলে।

ঝলমলিয়া হাইওয়ে ফাঁড়ির পুলিশ জানায়, বৃহস্পতিবার সকাল ১১ টার দিকে স্থানীয় ওমর শরীফ চৌহানের ভাটার একটি মাটিবাহী ট্রাক্টর এলাকার দিকে যাওয়ার সময় বিপরীত দিক থেকে আসা একটি অটোকে চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই অটো চালক রফিক নিহত হয় এবং দুই যাত্রী আহত হয়।

খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের একটি উদ্ধারকারী দল ঘটনাস্থলে গিয়ে মরদেহ উদ্ধার করে এবং আহত দু’জনকে নাটোর সদর হাসপাতালে ভর্তি করে।

আহতদের মধ্যে প্রকৌশলী জাহাঙ্গীরের অবস্থা সংকটাপন্ন হওয়ায় তাকে দ্রুত উন্নত চিকিৎসার জন্য রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহটি সদর হাসপাতাল মর্গে নেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। তবে ঘাতক ট্রাক্টর এবং এর চালককে আটক করতে পারেনি পুলিশ।

নরসিংদীনরসিংদী-সড়ক দুর্ঘটনানাটোরনাটোর-সড়ক দুর্ঘটনা