কলকাতায় উদ্বোধনী ছবি ‘হাসিনা: অ্যা ডটারস টেল’

‘হাসিনা: অ্যা ডটারস টেল’ দিয়ে কলকাতায় তৃতীয় বারের মতো শুরু হতে যাচ্ছে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উৎসব। শুক্রবার (৫ ফেব্রুয়ারি) কলকাতা শহরের নন্দনে (পশ্চিমবঙ্গ চলচ্চিত্র কেন্দ্র) হবে উদ্বোধনী অনুষ্ঠান। 

যেখানে বাংলাদেশ থেকে উপস্থিত থাকার কথা রয়েছে তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ সহ চলচ্চিত্র অঙ্গনের বেশ কয়েকজন অভিনেতা-অভিনেত্রীর।

এরআগেই তথ্যমন্ত্রণালয় থেকে জানানো হয়েছে, কলকাতায় এবারের উৎসবটি চলবে পাঁচ দিনব্যাপী। ৫ ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হয়ে পর্দা নামবে ৯ ফেব্রুয়ারি। চলচ্চিত্র উৎসবের পাশাপাশি এবার থাকছে ‘বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশ’ শিরোনামে চিত্রপ্রদর্শনীর আয়োজন।

শুক্রবার বিকেলে কলকাতার নন্দনের এক নম্বর থিয়েটারে উদ্বোধনী অনুষ্ঠান শেষে সন্ধ্যা ৬টায় দেখানো হবে পিপলু আর খানের আলোচিত প্রামাণ্য চলচ্চিত্র ‘হাসিনা: অ্যা ডটারস টেল’।

বিজ্ঞাপন

৬ ফেব্রুয়ারি থেকে ৯ ফেব্রুয়ারি, এই চারদিন নন্দন-২ এবং নন্দন-৩ এ দিনে চলবে চারটি করে সিনেমা প্রদর্শনী। চার দিনে দুটি প্রেক্ষাগৃহে এবার বাংলাদেশের মোট ৩২টি সিনেমা দেখানো হবে।

সিনেমার সময়সূচি

এরমধ্যে সাতটি সিনেমা ইমপ্রেস টেলিফিল্ম প্রযোজিত। ছবিগুলো হলো- জালালের গল্প, কৃষ্ণপক্ষ, অজ্ঞাতনামা, আঁখি ও তার বন্ধুরা, ফাগুন হাওয়ায়, ইতি তোমারই ঢাকা ও রাজাধিরাজ রাজ্জাক।

ইমপ্রেস টেলিফিল্ম ছাড়া যে ২৫টি সিনেমা দেখতে পারবেন কলকাতার দর্শক, সেগুলো হলো: ছুঁয়ে দিলে মন, আন্ডার কনস্ট্রাকশন, পদ্ম পাতার জল, বাপজানের বায়স্কোপ, মুসাফির, আয়নাবাজি, সত্তা, ভুবনমাঝি, সেরা নায়ক, হাসিনা: অ্যা ডটারস টেল, দেবী, আবার বসন্ত, ইন্দুবালা, শাহেনশাহ, অন্তরজ্বালা, মায়া দ্য লস্ট মাদার, কাঠবিড়ালী, একাত্তরের গণহহত্যা ও বধ্যভূমি, জন্মসাথী, গণআদালত, হীরালাল সেন, কাঙ্গাল হরিনাথ, ইসমাইলের মা, শাটল ট্রেন ও ন ডরাই।

বিজ্ঞাপন

‘আন্ডার কনস্ট্রাকশন’অন্তরজ্বালাআবার বসন্তআয়নাবাজিইন্দুবালাইসমাইলের মাএকাত্তরের গণহহত্যা ও বধ্যভূমিকাঙ্গাল হরিনাথকাঠবিড়ালীগণআদালতছুয়েঁ দিলে মনজন্মসাথীদেবীন ডরাইপদ্ম পাতার জলপোড়ামন-২বাপজানের বায়স্কোপভুবনমাঝিমায়া দ্য লস্ট মাদারমুসাফিরলিড বিনোদনশাটল ট্রেনশাহেনশাহসত্তাসেরা নায়কহীরালাল সেন