‘আমাদের কোচিং প্যানেল এখন খুবই হাই-প্রোফাইল’

জাতীয় দলের কোচিং প্যানেল ঢেলে সাজিয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। গুরুত্বপূর্ণ তিনটি পদে আনা হয়েছে পরিবর্তন। ক্রিকেটপাড়ায় কান পাতলেই শোনা যায় নতুন কোচিং প্যানেল নিয়ে সন্তুষ্টির কথা। কোচদের কাজ যাদের নিয়ে সেই ক্রিকেটারদের মতও অভিন্ন। বাংলাদেশ দলের সিনিয়র সদস্য মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ মনে করেন কোচিং প্যানেল এবার খুব বেশি সমৃদ্ধ হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

টাইগারদের প্রধান কোচের দায়িত্ব পেয়েছেন সাউথ আফ্রিকার সাবেক কোচ রাসেল ডমিঙ্গো। তার আগে বিসিবি নিয়োগ দেয় সাবেক প্রোটিয়া পেসার চার্লস ল্যাঙ্গাভেল্ট (পেস বোলিং কোচ) ও নিউজিল্যান্ডের ডেনিয়েল ভেট্টরিকে (স্পিন বোলিং কোচ)। চুক্তির মেয়াদ ২০২০ সালের টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপ পর্যন্ত বাড়িয়ে রেখে দেয়া হয়েছে নিল ম্যাকেঞ্জিকে (ব্যাটিং কোচ)। ফিল্ডিং কোচ হিসেবে কাজ করছেন আরেক সাউথ আফ্রিকান রায়ান কুক।

বাংলাদেশের কোচিংয়ে সাউথ আফ্রিকানদের সংখ্যা দুই থেকে চার হওয়াও সুবিধা দেখছেন মাহমুদউল্লাহ। কোচদের নিজেদের মধ্যে বোঝাপড়া ও সমন্বয় ভালো হলে সুবিধা তো ক্রিকেটারদেরও।

‘ম্যাকেঞ্জির সঙ্গে অনেকদিন ধরেই কাজ করছি। সে অসাধারণ একজন ব্যাটিং কোচ। আমি ব্যক্তিগতভাবেও তার সঙ্গে কথা বলি ব্যাটিং নিয়ে। তার কিছু কিছু আইডিয়া ও ইনফরমেশন আমার ব্যাটিংয়ের জন্য খুব উপকারী হয়। আর ভেট্টরি আছে। ল্যাঙ্গাভেল্ট, উনার সঙ্গে আমি খেলেছিও শ্রীলঙ্কান প্রিমিয়ার লিগে। উনি খুব ভাল মানুষ। আর উনার ক্যারিয়ারই বলে উনি কত ভালো বোলার ছিলেন। পেস বোলারদের জন্য খুব ভালো হবে।  এখন আমাদের কোচিং প্যানেল খুবই হাই-প্রোফাইল। আমাদের সবার জন্যই খুব ভালো (একই দেশের চার কোচ) একটা ইতিবাচক দিক।’

নতুন হেড কোচের প্রথম অ্যাসাইনমেন্ট হবে সেপ্টেম্বরে দেশের মাটিতে আফগানিস্তানের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজ। জিম্বাবুয়েকে নিয়ে ত্রিদেশীয় টি-টুয়েন্টি সিরিজও আছে তার পরপরই। ডমিঙ্গোর কাজ অবশ্য শুরু হয়ে যাবে চলতি সপ্তাহ থেকেই। সামনের দুটি মিশনের জন্য প্রাথমিক দলে যে ৩৫ ক্রিকেটারকে ডাকা হয়েছে তাদের নিয়ে মিরপুরে সোমবার থেকে অনুশীলন ক্যাম্প শুরু হবে। ডমিঙ্গোর যোগ দেয়ার কথা দুইদিন পর, আগামী বুধবার।

পেসার তাসকিন আহমেদ মুখিয়ে আছেন নতুন হেড কোচের কাছ থেকে নতুন কিছু শিখতে, ‘কোনো সন্দেহ নেই এটা আমাদের জন্য ভালো হয়েছে। কারণ সে সাউথ আফ্রিকার মতো বড় দলের কোচ ছিলেন অনেক দিন ধরে। আশা করি আমরা যারা তরুণ আছি তারা অনেক কিছু নেয়ার চেষ্টা করব। আমি অপেক্ষা করছি। সামনে অনেক ক্যাম্প আছে। যদি সুযোগ পাই তাদের সঙ্গে কাজ করার, চেষ্টা করব যতটুকু সম্ভব নতুন নতুন জিনিস শিখে নিতে।’

কোচমাহমুদউল্লাহ রিয়াদলিড স্পোর্টস