চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ইন্দোনেশিয়ায় ১৮ থেকে ৫৯ বয়সীরা প্রথমে পাবে করোনা ভ্যাকসিন

যুক্তরাজ্যে প্রথমে করোনা ভ্যাকসিন প্রয়োগ করা হয় সর্বোচ্চ ৯০ বছর বয়সীদের দেহে। কানাডায় ৮৯ বয়সীদের আর জার্মানিতে ১০১ বছর বয়সী রোগীর দেহে।

কিন্তু দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার সর্বাধিক করোনা আক্রান্ত দেশ ইন্দোনেশিয়া গ্রহণ করেছে সম্পূর্ণ বিপরীত ও অপ্রচলিত উদ্যোগ। বুধবার থেকে সেদেশে শুরু হওয়া টিকাদান কর্মসূচির শুরুতেই পাচ্ছেন অধিকতর তরুণরা।  দেশটির সরকার বয়স্কদের পরিবর্তে প্রথম ধাপে টিকাদানের জন্য লক্ষ্যবস্তু নিয়েছে ১৮-৫৯ বছর বয়সীদের।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

এ বিষয়ে সেদেশের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ডা. নাদিয়া ওয়াইকেকো বিবিসিকে জানান, আমরা বয়স্কদের পরিবর্তে উৎপাদনশীল বয়স তথা ১৮-৫৯ বছর বয়সীদের লক্ষ্যবস্তু করেছি। কেননা, সিনোভ্যাকের টিকার তৃতীয় ধাপের ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল সম্পন্ন করতে পারিনি।  এখন ৬০ বছরের বেশি বয়সীদের দেহে এ টিকা প্রয়োগ করার মতো নিরাপদ কিনা, তা যাচাই করা হচ্ছে।  খাদ্য ও ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থার সবুজ সংকেতের অপেক্ষায় রয়েছি।

বিজ্ঞাপন

ইন্দোনেশিয়ায় প্রথম ধাপের টিকাদান কর্মসূচি আজ থেকে শুরু চলবে মার্চের শেষ অবধি। এসময়ে  ১.৩ মিলিয়ন স্বাস্থ্যকর্মী এবং তার পর ১৭.৪ মিলিয়ন সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারী তথা পুলিশ, সৈনিক, শিক্ষক ও আমলাদের টিকা প্রদান করা হবে।

চীনা সংস্থা সিনোভ্যাক বায়োটেক এর টিকাদানের উদ্যোগ নিয়েছে ইন্দোনেশিয়া।

দেশটিতে এখন পযন্ত করোনা আক্রান্ত হয়েছে ৮ লাখ ৩৬ হাজার ৭১৮ জনও মৃত্যু হয়েছে ২৪ হাজার ৩৪৩ জন।