চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

স্থানীয়দের সঙ্গে সংঘর্ষে রাবি ছাত্রলীগ নেতা আহত

গাছ থেকে লিচু পাড়াকে কেন্দ্র করে স্থানীয়দের সঙ্গে সংঘর্ষে হাত ভেঙ্গে গেছে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় (রাবি) ছাত্রলীগ নেতা মাহমুদুর রহমান কাননের। মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের রোকেয়া হলের পেছনের গোদাগাড়ী বাগানে লিচু পাড়তে গেলে স্থানীয়রা তাকে মারধর করে।

বিজ্ঞাপন

এতে কাননের সঙ্গে থাকা আরও কয়েকজন নেতাকর্মী আহত হয়। গুরুতর অবস্থায় তাকে দ্রুত রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে (রামেক) নেয়া হয়। বর্তমানে তিনি রামেকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আছেন। মারধরের শিকার মাহমুদুর রহমান কানন বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক এবং উপ-আন্তর্জাতিক সম্পাদক মেহেদি হাসান।

মারধরে কাননের দুটি হাতই ভেঙ্গে গেছে এবং মেহেদীর এক পায়ে গুরুতর জখম হয়েছে। তবে মারধরকারীদের পরিচয় পাওয়া জানা যায়নি। ক্যাম্পাস সূত্রে জানা যায়, রাত সাড়ে ৯টার দিকে কানন ও মেহেদিসহ ছাত্রলীগের আটজন নেতাকর্মী গোদাগাড়ী বাগানে লিচু পাড়তে যায়। বাগানটি পাহারার দায়িত্বে থাকা বেশ কয়েকজন স্থানীয় তাদেরকে বাধা দেন।

কানন ও মেহেদীসহ সবাই ছাত্রলীগের নেতাকর্মী পরিচয় দেয়ার এক পর্যায়ে তাদের মধ্যে হাতাহাতি শুরু হয়। এতে স্থানীয়রা তাদের ওপর ক্ষিপ্ত হয়ে লাঠি-বাঁশ দিয়ে সবাইকে এলোপাথাড়ি মারধর করে। খবর পেয়ে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা ঘটনাস্থলে রড, স্ট্যাম্প নিয়ে উপস্থিত হন। তাদের উপস্থিতি টের পেয়ে মারধরকারীরা পালিয়ে যায়।

বিজ্ঞাপন

ওই সময় নেতাকর্মীরা প্রহরীদের থাকার জন্য তৈরি করা মাচার ঘরটিতে আগুন দেয়। জানতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ফয়সাল আহমেদ রুনু বলেন, আমাদের দুইজনকে মারধর করা হয়েছে। আমরা তাদেরকে চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে ভর্তি করেছি। তাদের চিকিৎসা চলছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক লুৎফর রহমান বলেন, লিচু পড়াকে কেন্দ্র করে স্থানীয় উশৃঙ্খলদের হামলায় কয়েককজন ছাত্রলীগ নেতাকর্মী আহত হয়েছে। তাদের মধ্যে একজনের দুই হাত ভেঙ্গে গেছে। পুলিশ স্থানীয়দের আটক করার জন্য অভিযান চালাচ্ছে। দ্রুত তাদের আটক করে শাস্তির আওতায় আনা হবে।

Bellow Post-Green View