চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

সৌদি আরবের রিয়াদে গণহত্যা দিবস পালিত

সৌদি আরবের রিয়াদে অবস্থিত বাংলাদেশ দূতাবাসে যথাযথ মর্যাদায় গতকাল গণহত্যা দিবস পালন করা হয়েছে। সন্ধ্যায় দূতাবাস চত্বরে এ উপলক্ষে ১৯৭১ সালের ২৫ মার্চ কালরাতে পাকিস্তানের হানাদার বাহিনী কর্তৃক সংঘটিত ভয়াবহ গণহত্যাকে স্মরণ করে কয়েকশ মোমবাতি প্রজ্জ্বলন করা হয়।

সৌদি আরবে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী বিপিএম (বার) এ সময় মোমবাতি প্রজ্জ্বলন করেন। দূতাবাসের কর্মকর্তা, কর্মচারীগণ মোমবাতি প্রজ্জ্বলন করে গভীর শ্রদ্ধায় স্মরণ করেন ২৫ মার্চ কালরাতে নিহত সকল বীর শহীদদের। এ সময় সকল শহীদের স্মরণে দাঁড়িয়ে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়।

বিজ্ঞাপন

রাষ্ট্রদূত মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী গভীর শ্রদ্ধায় স্মরণ করেন জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, জাতীয় চার নেতা, মহান মুক্তিযুদ্ধে নিহত ৩০ লাখ শহীদ ও সম্ভ্রম হারানো ২ লাখ মা বোনকে।

গণহত্যা দিবস নিয়ে রাষ্ট্রদূত বলেন, পৃথিবীর ইতিহাসে এটি একটি জঘন্যতম নির্মম হত্যাকাণ্ড। পাকিস্তানী হানাদার বাহিনী ২৫ মার্চ কালরাতে অতর্কিতে নিরস্ত্র বাঙ্গালির ওপর বর্বরোচিত হামলা করে, হত্যা করে বিভিন্ন শ্রেণী পেশার হাজার হাজার মানুষকে। ঢাকা পরিণত হয় এক মৃত্যু উপত্যকায়। ২৬ মার্চের প্রথম প্রহরেই বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান আনুষ্ঠানিকভাবে স্বাধীনতার ঘোষণা দেন।

বাংলার মানুষ মুক্তিযুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়ে। দীর্ঘ নয় মাসের রক্তক্ষয়ী সংগ্রামের মাধ্যমে অর্জিত হয় আমাদের মহান স্বাধীনতা। পৃথিবীর বুকে জন্ম নেয় বাংলাদেশ নামক স্বাধীন সার্বভৌম রাষ্ট্র। রাষ্ট্রদূত মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী বলেন, পৃথিবীর কোন দেশে যেন আর কখনও এরকম গণহত্যা সংঘটিত না হয়।

মোমবাতি প্রজ্জ্বলন শেষে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও মহান মুক্তিযুদ্ধে নিহত সকল বীর শহীদদের আত্মার মাগফেরাত কামনা করে বিশেষ দোয়া ও মোনাজাত করা হয়।