চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

একইদিনে দুই নক্ষত্রের জন্মদিন

সব্যসাচী লেখক সৈয়দ শামসুল হক ৮৩তম জন্মদিন আজ ২৭ ডিসেম্বর। একইদিন কথাসাহিত্যিক রাবেয়া খাতুনের জন্মদিন। নানা আয়োজনে উদযাপিত হচ্ছে বাংলা সাহিত্যের গুণী এই দুই মানুষের জন্মদিন।

সাহিত্যের প্রতিটি শাখায় মেধার স্বাক্ষর রেখে গেছেন সৈয়দ শামসুল হক। ১৯৩৫ সালের এই দিনে কুড়িগ্রামে জন্মগ্রহণ করেন তিনি। আট ভাই বোনের মধ্যে সৈয়দ হক ছিলেন সবার বড়। কুড়িগ্রামে স্কুল জীবন, জগন্নাথ কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিক এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগে উচ্চ শিক্ষা।

বাংলা সাহিত্যে ছয় দশক ধরে গল্প, উপন্যাস, কবিতা, গান, নাটক, চলচ্চিত্রের চিত্রনাট্যসহ সব ক্ষেত্রে বিচরণ করেছেন বহুমাত্রিক এই লেখক। জীবনের প্রায় শেষদিন পর্যন্ত তিনি লিখে গেছেন। ২০১৬ সালের ২৭ সেপ্টেম্বর গুণী এ লেখক মৃত্যুবরণ করেন। একুশে পদক ও স্বাধীনতা পুরস্কারসহ অসংখ্য সম্মাননায় সম্মানিত সৈয়দ হক।

বিজ্ঞাপন

বাংলা সাহিত্যে আরেক উজ্জ্বল নক্ষত্র রাবেয়া খাতুন। ১৯৩৫ সালের ২৭ ডিসেম্বর বিক্রমপুরে জন্ম তার। কথাসাহিত্যিক রাবেয়া খাতুন একসময় শিক্ষকতা করেছেন, সাংবাদিকতার সঙ্গেও যুক্ত ছিলেন অনেকদিন। উপন্যাস, ছোটগল্প, ভ্রমণ কাহিনী, কিশোর উপন্যাস, স্মৃতিকথাসহ চলচ্চিত্র ও নাট্য জগতেও বিচরণ তার। তার মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক উপন্যাস ‘মেঘের পরে মেঘ’ জনপ্রিয় একটি চলচ্চিত্র। এছাড়া ‘মধুমতি’, ‘কখনো মেঘ কখনো বৃষ্টি’ প্রশংসিত সব মহলে।

একুশে পদক, স্বাধীনতা পদক, বাংলা একাডেমি পুরস্কার, মাইকেল মধুসূদন পুরস্কার, হুমায়ূন কাদির স্মৃতি পুরস্কারসহ অসংখ্য পুরস্কার ও সম্মাননায় ভূষিত রাবেয়া খাতুন। তার স্বামী প্রয়াত ফজলুল হক ছিলেন দেশের চলচ্চিত্র বিষয়ক প্রথম পত্রিকা সিনেমার সম্পাদক ও চিত্রপরিচালক। বাংলাদেশের প্রথম শিশুতোষ চলচ্চিত্র ‘প্রেসিডেন্ট’ এর পরিচালক ছিলেন তিনি।

আরও বিস্তারিত দেখুন ভিডিও রিপোর্টে:

বিজ্ঞাপন