চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

সেপ্টেম্বর থেকে এজেন্ট ব্যাংকিং চালু করবে সোনালী ব্যাংক

সেপ্টেম্বর মাস থেকে রাষ্ট্রায়ত্ত সোনালী ব্যাংক শতভাগ এজেন্ট ব্যাংকিং কার্যক্রম শুরু করবে বলে জানিয়েছেন ব্যাংকটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) আতাউর রহমান প্রধান।

বৃহস্পতিবার সোনালী ব্যাংকের এক বছর পূর্তি উপলক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা জানান। সংবাদ সম্মেলনে ২০১৯ থেকে ২০২০ সালের বর্তমান সময় পর্যন্ত তুলনামূলক একটি আর্থিক চিত্র প্রকাশ করা হয়।

বিজ্ঞাপন

আতাউর রহমান প্রধান জানান, তথ্যপ্রযুক্তি বা আইটি খাত নিয়ে দ্রুতগতিতে কাজ করছে সোনালী ব্যাংক। করোনাকালীন ৫ মাসে তথ্য প্রযুক্তির ব্যবহারে সোনালী ব্যাংক ৫ বছর এগিয়ে গেছে। এরইমধ্যে ব্যাংকের সব শাখায় অনলাইন কার্যক্রম শুরু হয়েছে। ইতোমধ্যেই কেন্দ্রীয় ব্যাংক থেকে এজেন্ট ব্যাংকিংয়ের অনুমোদন পাওয়া গেছে। সকল প্রক্রিয়া শেষ করে আগামী মাস থেকে সোনালী ব্যাংক সম্পূর্ণভাবে এজেন্ট ব্যাংকিং কার্যক্রম শুরু করবে।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

সোনালী ব্যাংকের বর্তমান আর্থিক চিত্র তুলে ধরে তিনি বলেন, ২০১৯ সালে এই ব্যাংকের মোট খেলাপি ঋণের পরিমাণ ছিল ১২ হাজার ২১৩ কোটি টাকা। তবে চলতি বছরের জুলাই শেষে ব্যাংকটির খেলাপি ঋণ দাঁড়িয়েছে ১০ হাজার ৭৫৩ কোটি টাকা। অর্থাৎ এক বছরের ব্যবধানে ব্যাংকের খেলাপি কমেছে ১ হাজার ৪৬০ কোটি। এক বছরের ব্যবধানে ব্যাংকের পরিচালন মুনাফা বেড়েছে ৫৮ শতাংশ।

এছাড়াও সোনালী ব্যাংকের আমানত ১ লাখ ১২ হাজার ৩৬৭ কোটি থেকে ১ লাখ ১৬ হাজার ৭৩৩ কোটিতে পৌঁছেছে। এক বছরের ব্যবধানে ব্যাংকটির লোকসানি শাখা ৫৮টি থেকে কমে ৫০টি-তে নেমেছে বলে জানান তিনি।

এক প্রশ্নের জবাবে সোনালী ব্যাংকের এমডি জানান, হলমার্ক কেলেঙ্কারির পর তেমন কোন বড় অনিয়ম হয়নি সোনালী ব্যাংকে। তবে এখন পর্যন্ত হলমার্কের কাছ থেকে উল্লেখ করার মতো টাকা আদায় করা সম্ভব হয়নি। অর্থঋণ আদালতে তাদের সকল জমিজমা এবং সম্পদের উপর মামলা চলছে। আইনি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে খুব দ্রুত হলমার্কের টাকা আদায়ের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।