চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

সেপ্টেম্বরেই শেষ হবে নিজামীর আপিল শুনানি

মানবতা বিরোধী অপরাধে মৃত্যুদণ্ডাদেশ প্রাপ্ত জামায়াতে ইসলামীর আমীর মতিউর রহমান নিজামীর আপিলের সার-সংক্ষেপ জমা দিয়েছেন রাষ্ট্র ও আসামিপক্ষের আইনজীবীরা।

অবকাশকালীন ছুটি শেষে এ আপিলের শুনানি শুরু হয়ে সেপ্টেম্বরের মধ্যে শেষ হবে বলে আশা করেছে রাষ্ট্রপক্ষ। জামায়াতের আরেক নেতা মীর কাসেম আলীর আপিলও শুনানির জন্য প্রস্তুত।

মুক্তিযুদ্ধের সময়ে বুদ্ধিজীবী হত্যাকাণ্ডের নীলনকশা বাস্তবায়নকারী গুপ্তঘাতক আলবদর বাহিনীর প্রধান মতিউর রহমান নিজামীর বিরুদ্ধে আনা ১৬ অভিযোগের মধ্যে আটটি প্রমাণ করেছেন রাষ্ট্রপক্ষ। পাবনার সাঁথিয়ায় গণহত্যা, ধূলাউড়ায় ৫২ জনকে হত্যা এবং বুদ্ধিজীবী হত্যাসহ ৪ অভিযোগে আসামিকে মৃত্যুদণ্ডাদেশ দেন আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-১।

শহীদ রুমি হত্যাসহ ৪ অভিযোগে দেওয়া হয়  যাবজ্জীবন কারাদণ্ডাদেশ। রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করেন নিজামী। এর পরেই চলতি বছরের ৩১ মার্চের মধ্যে সারসংক্ষেপ জমা না হলে আপিল শুনানির জন্য প্রস্তুত বলে গণ্য হবে বলে আদেশ দেন আপিল বিভাগ। 

সহকারি অ্যাটর্নি জেনারেল বশির আহমেদ জানান, নিজামী মামলার বিষয়ে অনেক প্রার্থী জড়িত আছে। তার আপিল এখন শুনানির জন্য প্রস্তুত আছে। মীর কাসেমের আপিলও শুনানির জন্য প্রস্তুত আছে। তবে যেহেতু সিরিয়াল মেনে চলা হয়; তাই নিজামী মামলার আপিল শুনানি শেষ হওয়ার পরই মীর কাশেমের মামলার আপিল শুনানি শুরু হবে।

বিজ্ঞাপন

নিজামীর আপিল শুনানিতে কী যুক্তি উপস্থাপিত হবে আর শুনানি কবে শেষ হতে পারে এ নিয়ে জানান রাষ্ট্রপক্ষ।

বশির আহমেদ আরো জানান, অতীতে সুপ্রিম কোর্টের আপিল ডিভিশন যেভাবে মনোযোগ দিয়ে মুজাহিদ ও সাকা চৌধুরি মামলা শুনেছেন; সেই গতি যদি অব্যাহত থাকে তাহলে তাদের ধারণা সেপ্টেম্বরে বড় বন্ধের আগেই নিজামীর মামলার শুনানি শেষ হয়ে যাবে।

আরেক জামায়াত নেতা আলী আহসান মুহাম্মদ মুজাহিদের আপিলের রায় ঘোষণা হলেও এখন অপেক্ষা পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশের। আর বিএনপি নেতা সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর আপিল শুনানি শেষে ২৯ জুলাই রায় ঘোষণা করবেন আপিল বিভাগ। 

শেয়ার করুন: