চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

সুদানে সাবেক সরকারের সদস্যদের গ্রেপ্তার চলছে

সাবেক সরকারের সদস্যদের একের পর এক গ্রেপ্তার করছে সুদানের অন্তর্বর্তীকালীন সামরিক কাউন্সিল। এ ব্যাপারে প্রতিবাদকারীদের কোনোরকম ছাড় না দেয়ারও অঙ্গীকার করেছে তারা।

পাশাপাশি কাউন্সিলের এক মুখপাত্র বিরোধী দলকে পরবর্তী প্রধানমন্ত্রী নির্বাচন করতে জোর আহ্বান জানিয়েছেন। বলেছেন, তাদের দেয়া সিদ্ধান্তই বাস্তবায়ন করা হবে।

বিজ্ঞাপন

সুদানে গত কয়েক মাস ধরে চলা আন্দোলনের পরিপ্রেক্ষিতে বৃহস্পতিবার দেশটির ৩০ বছর ধরে ক্ষমতায় থাকা প্রেসিডেন্ট ওমর আল-বশির পদচ্যুত ও গ্রেপ্তার হন। এর মধ্য দিয়ে ক্ষমতা গ্রহণ করে অন্তর্বর্তীকালীন সামরিক সরকার।

ওমর আল-বশিরের ক্ষমতাচ্যুতির পর দু’দিন পরিবেশ শান্তা থাকলেও এই সামরিক কাউন্সিলের বিরুদ্ধে আবার মাঠে নেমেছে বিক্ষোভকারীরা। তাৎক্ষণিকভাবে একটি বেসামরিক সরকারের শাসন কায়েমের আগ পর্যন্ত রাজপথে থাকার সংকল্প জানিয়েছে তারা।

বিজ্ঞাপন

সুদান-গ্রেপ্তার-সামরিক কাউন্সিল
ওমর আল-বশির

সুদানের রাজধানী খারতুমে প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের সামনেও চলছে এই বিক্ষোভকারীদের অবস্থান কর্মসূচি।

এই আন্দোলনের জবাব হিসেবেই রোববার সংবাদ সম্মেলনে বিরোধী দলের প্রতি প্রধানমন্ত্রী বেছে নেয়ার আহ্বান জানান সামরিক কাউন্সিলের মুখপাত্র মেজর জেনারেল শামস আদ-দ্বীন শান্ত। তিনি জানান, বিরোধী দলগুলো একমত হয়ে যেমন বেসামরিক সরকার গঠন করার সিদ্ধান্ত নেবে, সামরিক কাউন্সিল সেটাই মেনে নিয়ে বাস্তবায়ন করতে তৈরি।

‘আমরা নিজে থেকে কোনো প্রধানমন্ত্রী নিয়োগ দেবো না। তারা একজনকে বেছে নেবে,’ বলেন তিনি। বিরোধী দল এবং আন্দোলনকারী দলগুলোর দিকে ইঙ্গিত করে মুখপাত্র এ কথা বলেন।