চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

সীমিত পরিসরে কানাডা হাইকমিশনে জাতির পিতার জন্মদিন

বিশ্বব্যাপী করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে জাতির পিতার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী সীমিত আকারে কানাডার অটোয়ায় হাইকমিশন প্রাঙ্গণে উদযাপন করা হয়েছে।

১৭ মার্চ দিবসের শুরুতেই সকাল ৯টায় হাইকমিশনার বাংলাদেশ ভবনে জাতীয় পতাকা আনুষ্ঠানিকভাবে উত্তোলন করেন। এ সময় হাইকমিশনের সব কর্মকর্তা-কর্মচারীরা উপস্থিত ছিলেন। বিকাল ৫টায় বাংলাদেশ হাইকমিশন প্রাঙ্গণে একটি বিশেষ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

অনুষ্ঠানের শুরুতেই বঙ্গবন্ধুর জন্মদিন ও জাতীয় শিশু দিবস উপলক্ষে কেক কাটার মাধ্যমে অনুষ্ঠানের সূত্রপাত হয়। অনুষ্ঠানটির সঞ্চালনা করেন হাইকমিশনের প্রথম সচিব অর্পনা রানী পাল।

হাইকমিশনার, হাই কমিশনের কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ ও প্রবাসী বাংলাদেশিরা এ উৎসবে যোগ দেন।

বিজ্ঞাপন

বঙ্গবন্ধুর জীবন ও কর্মের উপর একটি প্রামাণ্য চিত্র প্রদর্শন করা হয়। উক্ত প্রামাণ্য চিত্রের পর একটি বিশেষ আলোচনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয় যেখানে আমন্ত্রিত অতিথিরা বঙ্গবন্ধুর জীবন আদর্শ, তার বর্ণিল রাজনৈতিক জীবন এবং নজিরবিহীন দেশপ্রেমের উপর বক্তারা মতামত ব্যক্ত করেন।

অনুষ্ঠানের সভাপতি হাইকমিশনার মিজানুর রহমান বলেন: “জন্ম শতবার্ষিকী উদযাপন আমাদের সকলের জন্য আনন্দের একটি মুহূর্ত। আমাদের সকলকে বঙ্গবন্ধুর জীবন, দেশের প্রতি তার ভালবাসা, ত্যাগ ও আদর্শ সম্পর্কে জানতে হবে এবং ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে জানাতে হবে। বঙ্গবন্ধুর জীবন মানে বাংলাদেশের ইতিহাস। সুতরাং বাংলাদেশের ইতিহাস জানতে হলে সর্বাগ্রে বঙ্গবন্ধুর ঘটনাবহুল আদর্শময় জীবন সম্পর্কে জানতে হবে।”

সেসময় বঙ্গবন্ধুর জন্ম শতবার্ষিকী উপলক্ষে স্মারক ডাকটিকেটের আনুষ্ঠানিক উন্মোচন করেন তিনি।

অনুষ্ঠান শেষে বঙ্গবন্ধু ও তার শহিদ পরিবারের সদস্যদের মাগফিরাত কামনা করে বিশেষ মোনাজাত করা হয়।

বিজ্ঞাপন