চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

সিলেটে পরিবহন শ্রমিকদের দু’গ্রুপের দফায় দফায় সংঘর্ষ

এনা কাউন্টার সহ ১০টি বাস ভাংচুর

সিলেটে কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল এলাকায় শ্রমিকদের দুই পক্ষের মধ্যে দফায় দফায় সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ সময় অন্তত ১০টি গাড়ি ভাংচুর করা হয়। বিক্ষুব্ধ শ্রমিকরা এনা পরিবহনের সিলেটের প্রধান কাউন্টার ভাংচুর করে। সংঘর্ষের প্রায় ঘণ্টা খানেক পর পুলিশ ও র‌্যাব টিয়ারশেল ছুঁড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

ঈদের আগে সাহায্য সহায়তা না দেওয়ায় সিলেটের পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি সেলিম আহমদ ফলিকের উপর ক্ষুব্ধ হয় পরিবহন শ্রমিকদের একাংশ। সকাল থেকে তারা নিজ কার্যালয় বাবনা মোড়ে অবস্থা নিয়ে বিক্ষোভ করছিলো। এতে করে ওই এলাকায় যানবাহন চলাচল কমে আসে। বেলা ১ টার দিকে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি স্বাভাবিক করে। এদিকে- বিকেল তিনটার দিকে পরিবহন শ্রমিকদের বিক্ষুব্ধ অংশ নিজ কার্যালয় থেকে বিক্ষোভ করে কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল এলাকায় আসে। সেখানে আসার পর ফলিক অংশের লোকজন তাদের উপর হামলা চালালে সংঘর্ষ বাধে।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

সংঘর্ষকালে অন্তত ২০ জন পরিবহন শ্রমিক আহত হন। বিক্ষুব্ধ শ্রমিকরা এনা বাসের প্রধান কাউন্টারে হামলা চালিয়ে ভাংচুর করে। তারা অন্তত ১০টি বাস ভাংচুর করে। পরে পুলিশ ও র‌্যাব গিয়ে টিয়ারশেল নিক্ষেপ করে বিকেল সাড়ে ৪ টার দিকে পরিস্থিতি স্বাভাবিক করে। আহতদের মধ্যে অন্তত ১০ জনকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

দক্ষিণ সুরমা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খায়রুলল ফজল বলেন, পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে সংঘর্ষ থামিয়েছে। তবে এখনও বিক্ষুব্ধ শ্রমিকরা টার্মিনাল এলাকায় অবস্থান করছে। তাদের বুঝিয়ে ফেরানোর চেষ্টা করছে। হতাহতের ব্যাপারে এখনই কিছু বলা যাচ্ছে না।