চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

সাউথ কোরিয়ার কাছে কিম জং উনের ‘বিরল দু:খ প্রকাশ’

সাউথ কোরিয়ার এক কর্মকর্তাকে গুলি করে হত্যার পর মৃতদেহ পুড়িয়ে ফেলার ঘটনায় দেশটির কাছে ক্ষমা চেয়েছেন নর্থ কোরিয়ার নেতা কিম জং উন। বিবিসি জানায়, এই ঘটনাকে ‘অবজ্ঞাপূর্ণ ব্যাপার‘ মন্তব্য করে অত্যন্ত দু:খ প্রকাশ করেছেন নর্থ কোরিয়ার নেতা। সাউথ কোরিয়া বলছে, প্রেসিডেন্ট মুন জে ইনের কাছে পাঠানো এক চিঠির মাধ্যমে কিম জং উন ক্ষমা চেয়েছেন। এ [...]

সাউথ কোরিয়ার এক কর্মকর্তাকে গুলি করে হত্যার পর মৃতদেহ পুড়িয়ে ফেলার ঘটনায় দেশটির কাছে ক্ষমা চেয়েছেন নর্থ কোরিয়ার নেতা কিম জং উন।

বিবিসি জানায়, এই ঘটনাকে ‘অবজ্ঞাপূর্ণ ব্যাপার‘ মন্তব্য করে অত্যন্ত দু:খ প্রকাশ করেছেন নর্থ কোরিয়ার নেতা।

বিজ্ঞাপন

সাউথ কোরিয়া বলছে, প্রেসিডেন্ট মুন জে ইনের কাছে পাঠানো এক চিঠির মাধ্যমে কিম জং উন ক্ষমা চেয়েছেন। এ ঘটনাকে কিমের বিরল ব্যক্তিগত দু:খ প্রকাশ হিসেবে দেখছে!

বিজ্ঞাপন

এমন ঘটনা কোনোভাবে উচিত ছিল না মন্তব্য করে কিম সাউথ কোরিয়ার জনগণকে ‘হতাশ’ করার জন্য ‘অত্যন্ত দু:খবোধ করছেন’ বলে জানিয়েছে সাউথ কোরিয়া।

বিজ্ঞাপন

সিউলের বরাত দিয়ে বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়, সীমান্তের কাছে একটি টহল নৌকা থেকে সোমবার ৪৭ বছর বয়সী এক মৎস্য কর্মকর্তা নিখোঁজ হন। পরে তাকে নর্থ কোরিয়ার জলসীমায় পাওয়া যায়।

সাউথ কোরিয়ার দাবি, নর্থ কোরিয়ার সেনারা তাকে গুলি করে তার মরদেহে তেল ঢেলে দিয়ে আগুন ধরিয়ে দিয়েছে।

করোনাভাইরাসের প্রবেশ ঠেকাতে নর্থ কোরিয়া সীমান্তে কঠোর নজরদারির যে নির্দেশ দিয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। সে কারণেই দেশটির সৈন্যরা সাউথ কোরিয়ার ওই কর্মকর্তার উপর গুলি ছুড়েছিলেন।

সোমবার নর্থ কোরিয়ার সীমানা থেকে ১০ কিলোমিটার দূরে থাকা অবস্থায় ওই কর্মকর্তা একটি টহল নৌকা থেকে নিখোঁজ হয়ে যান। তিনি নর্থ কোরিয়ায় প্রবেশের চেষ্টা করেছিলেন বলে জানা গেছে।