চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

সফল হতে ‘আউট অব দ্য বক্স’ খেলতে হবে: তামিম

পাকিস্তান সুপার লিগ (পিএসএল) অভিযান শেষ করে বৃহস্পতিবার দেশে ফিরেছেন তামিম ইকবাল। করোনা পরীক্ষায় নেগেটিভ হয়ে শনিবার থেকে শুরু করেছেন অনুশীলন। বঙ্গবন্ধু টি-টুয়েন্টি কাপে টাইগার ওপেনারের দল ফরচুন বরিশাল।

এই দলে অভিজ্ঞ খেলোয়াড়ের সংখ্যা হাতে গোনা। তরুণদের প্রাধান্য দিয়ে গড়া হয়েছে স্কোয়াড। ব্যাটিংয়ে অধিনায়ক তামিমের সঙ্গে আছেন সাইফ হাসান, পারভেজ হোসেন ইমন, আফিফ হোসেন ধ্রুব, ইরফান শুক্কুর, মাহিদুল অঙ্কন ও আবু সায়েম।

বিজ্ঞাপন

পেস বোলিংয়ে নেতৃত্ব দেবেন তাসকিন আহমেদ, আবু জায়েদ রাহি, সুমন খান ও কামরুল ইসলাম রাব্বি। আর স্পিনে মেহেদী হাসান মিরাজ, তানভির ইসলাম, সোহরাওয়ার্দী শুভ ও আমিনুল ইসলাম বিপ্লব।

বরিশাল ভারসাম্যপূর্ণ দল গড়লেও অধিনায়ক তামিম মনে করেন ড্রাফট থেকে খেলোয়াড় নেওয়ায় কিছুটা ভুল হয়েছে তাদের।

বিজ্ঞাপন

তারপরও এই দল নিয়ে ভালো ফলের আশা তামিমের। সাফল্য পেতে আউট অব দ্য বক্স খেলতে হবে বলে জানাান বাংলাদেশ দলের নতুন ওয়ানডে অধিনায়ক।

‘আমরা ড্রাফটে কিছু ভুল করেছি। সঙ্গে এটাও বুঝতে হবে ক্রিকেট অনিশ্চয়তার খেলা, যেকোনো কিছুই হতে পারে। এখন যারা আছে তাদের অনেককে হয়ত আপনারা-আমরা কাউন্ট করছি না। কিন্তু তারা সবাই দুর্দান্ত কিছু করে ফেলতে পারে। আমরা প্রেসিডেন্টস কাপেও দুই তিনজন খেলোয়াড়কে নিয়ে আশা করিনি এত ভালো করবে। টুর্নামেন্ট শেষে ওদের নিয়ে আলোচনা সবচেয়ে বেশি ছিল। আশা করি যারা লাইমলাইটে নাই তারা ওরকম পারফরম্যান্স করবে। দলকে যতটুকু দেওয়া দরকার তার চেয়ে বেশি দিবে।’

“যে দলটা আছে আমাদের সফল হতে হলে আউট অব দ্য বক্স ক্রিকেট খেলতে হবে। গৎবাধা পরিকল্পনা সেট করে খেললে জেতাটা কঠিন হবে আমাদের জন্য। যদি আউট অব দ্য বক্স চিন্তা করি, অন্য দলকে চমকে দিতে পারি তাহলে সম্ভব। আমার এখানে দুই তিনজন যাদের নিয়ে কেউ আশা করছে না, তারা ভাল করলে যেকোনো কিছুই সম্ভব।” -বলেন তামিম।

২৪ নভেম্বর মিরপুরে শুরু হবে পাঁচ দলের ফ্র্যাঞ্চাইজি আসর। উদ্বোধনী দিনে সন্ধ্যার ম্যাচে বরিশালের প্রতিপক্ষ মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ-সাকিব আল হাসানের দল জেমকন খুলনা।