চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

শ্রাবন্তীর সংসারে আবারও ভাঙনের সুর

নিজেদের সম্পর্ককে ‘অতীত’ বলেছেন স্বামী রোশান সিং, তবে সম্পর্ক নিয়ে আশাবাদী শ্রাবন্তী…

আবারও ভাঙনের সুর পশ্চিমবঙ্গের জনপ্রিয় অভিনেত্রী শ্রাবন্তীর দাম্পত্য জীবনে! অন্তত এমন গুঞ্জনই পুরো টলি পাড়ায়।

পূজার আগেই গুঞ্জন শোনা যায় যে, ভাঙছে শ্রাবন্তীর তৃতীয় সংসার!  এবার প্রকাশ্যে এল যে, শ্রাবন্তী তার বর্তমান স্বামী রোশান সিংয়ের সঙ্গে থাকছেন না। বেশকিছু দিন ধরে তারা আলাদা থাকছেন।

বিজ্ঞাপন

পশ্চিমবঙ্গের সংবাদমাধ্যম বলছে, দাম্পত্য জীবনে মনের মিল না হওয়ার শ্রাবন্তী এবং রোশান সিং আপাতত দুই মেরুর বাসিন্দা! খবরে বলা হচ্ছে, শ্রাবন্তীর সঙ্গে বৈবাহিক সম্পর্ককে ‘অতীত সম্পর্ক’ বলে মন্তব্য করেছেন রোশান সিং।

তিনি বলেন, ‘হ্যাঁ, এটা সত্যি যে আমরা একসঙ্গে থাকছি না। তবে আমি এ বিষয়ে কোনো মন্তব্য করতে রাজি নই। কারণ, আমাদের অতীত হয়ে যাওয়া সম্পর্ককে আমি সম্মান করি।’

এদিকে রোশান সিংয়ের সঙ্গে নিজের ইনস্টাগ্রাম থেকে সব ছবি সরিয়ে ফেলেছেন শ্রাবন্তী। রোশান সিং ও তার অ্যাকাউন্টে রাখেননি শ্রাবন্তীর কোনো ছবি।

এদিকে ভাঙনের খবরে শ্রাবন্তী বলেন, হয়তো আমাদের সম্পর্কের হানিমুন পর্ব শেষ হয়ে গেছে। তার মানে এই না যে আমাদের সম্পর্ক শেষ হয়ে গেছে। আশা ব্যক্ত করে শ্রাবন্তী বলেন, সমস্ত সম্পর্কেই এদিক সেদিক বাঁক আছে। আমি বিশ্বাস করি, আমাদের নিজেদের সমস্যা আমরা নিজেদের মতো করে সমাধান করে নেব। আমাদের সম্পর্কটা আবার জোড়া লাগবে।

২০০৩ সালে পরিচালক রাজীব বিশ্বাসের সঙ্গে শ্রাবন্তীর প্রথম বিয়ে হয়েছিল। রাজীব-শ্রাবন্তীর সংসারে জন্ম নেয়া ছেলে ঝিনুক শ্রাবন্তীর সঙ্গেই থাকেন। রাজীব বিশ্বাসের সঙ্গে বিচ্ছেদের পরে শ্রাবন্তীর সম্পর্ক হয় মডেল কৃষণ ব্রজের সঙ্গে। বিয়েও করেন তারা। কিন্তু বিয়ের কিছু দিনের মধ্যেই শুরু হয় মনমালিন্য। বছর দুয়েক আগে কৃষণের সঙ্গেও বিচ্ছেদ হয় শ্রাবন্তীর।

এরপর ধুমধুম আয়োজনে ২০১৯ সালের ১৯ এপ্রিল শ্রাবন্তী-রোশানের মালাবদল হয়েছিল। কলকাতায় নয়, একেবারে রোশানের বাড়ি চণ্ডিগড়ে। আলোচনা, সমালোচনা এড়াতেই কলকাতা ছেড়ে বিয়ের জন্য স্বামীর বাড়িকে বেছে নিয়েছিলেন শ্রাবন্তী। বিয়ের আনুষ্ঠানিকতার প্রায় ১২দিন পর সেদিনের ছবি প্রকাশ করেন শ্রাবন্তীর স্বামী রোশান।