চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

লাল কার্ড থেকে বেঁচে গেছেন ‘অশান্ত’ মেসি!

পয়েন্ট খুইয়ে চাপ সরে যাওয়ার স্বস্তি বার্সা কোচের

লিওনেল মেসিকে ফাউল করা খেলোয়াড়রা কেনো লাল কার্ড দেখেন না তা নিয়ে হৈচৈ আছে বিস্তর, কিন্তু মেসিই যখন অন্যকে ফাউল করে কার্ড দেখা থেকে বেঁচে যান তখন বিষয়টা কেমন দেখায়? বিস্ময়কর হলেও শুক্রবার রাতে মেজাজ গরম করে অল্পের জন্য নিষেধাজ্ঞা থেকে বেঁচে গেছেন বার্সেলোনা অধিনায়ক!

ঘটনা ম্যাচের প্রথমার্ধে। একদম শেষ সময়ে ফাউলের শিকার হন সদ্যই চোট কাটিয়ে ওঠা বার্সা ফরোয়ার্ড লুইস সুয়ারেজ। রেফারি ফাউলের বাঁশি বাজান। তা শুনেও মেসিকে বাজেভাবে ট্যাকল করেছিলেন সেভিয়া ডিফেন্ডার ডিয়েগো কার্লোস, সঙ্গে সঙ্গে মেজাজ হারিয়ে কার্লোসকে ধাক্কা মেরে বসেন আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড।

বিজ্ঞাপন

মেসির ধাক্কায় সুযোগ বুঝে মাটিতে গড়াগড়ি খেয়েছেন কার্লোস। দুই দলের খেলোয়াড়রা জড়িয়ে পড়েন দ্বন্দ্বে। এসময় মাটিতে কাতরানো কার্লোসকে একদফা শাসিয়েও দেন তেঁতে থাকা মেসি। তবে কপাল ভালো এতকিছুর পরও তাকে লাল কার্ড দেখাননি রেফারি!

বিজ্ঞাপন

মেসি কার্ড থেকে বাঁচলেও পারেননি ম্যাচ জেতাতে, গোলশূন্য ড্র করার পর পয়েন্ট খুইয়ে এখন রিয়ালের পেছনে পড়ে যাওয়ার শঙ্কায় বার্সা। ৩০ ম্যাচে তাদের পয়েন্ট ৬৫, আর এক ম্যাচ কম খেলে রিয়ালের ৬২। রোববার রাতে সোসিয়েদাদের মাঠে জয় পেলেই বার্সাকে টপকে যাবে জিনেদিন জিদানের শিষ্যরা।

এতে ঘাবড়ানোর কিছু নেই বলেই মনে করেন বার্সা কোচ কিকে সেতিয়েন। লিগে এখনো বাকি ৮ ম্যাচ, সবগুলো ম্যাচ রিয়াল জয় পেলে তবেই শিরোপা হাতছাড়া হবে বার্সার। আর চিরপ্রতিদ্বন্দ্বীরা কোনো না কোনো ম্যাচ হারবে বলেই কিকের বিশ্বাস।

‘আমার মনে হয় না রিয়াল সবগুলো ম্যাচ জিতবে। বাস্তবতা হচ্ছে চাপটা আমাদের কাঁধ থেকে সরে গেছে।’