চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

রিফাত হত্যা: রিশান ফারজী গ্রেপ্তার

বরগুনায় প্রকাশ্য দিবালোকে রিফাত শরীফকে নৃশংসভাবে কুপিয়ে হত্যা মামলার অন্যতম আসামি মোঃ রাশিদুল হাসান রিশান ফরাজীকে গ্রেপ্তার  করেছে পুলিশ।

তবে কোন স্থান থেকে রিশান ফরাজীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে, সে বিষয়ে কিছু জানায়নি পুলিশ। এই মামলায় রিফাতের স্ত্রী আয়েশা সিদ্দিকা মিন্নিকে গ্রেপ্তার দেখানোর একদিন পরই রিশানকে গ্রেপ্তারের কথা জানালো।

বিজ্ঞাপন

বৃহস্পতিবার দুপুরে বরগুনা পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলন করে পুলিশ সুপার মারুফ হোসেন সাংবাদিকদের বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

তিনি জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বরগুনা সদর সার্কেল মো. শাহজাহান হোসেনের নেতৃত্বে অভিযান চালিয়ে রিশান ফরাজীকে গ্রেপ্তার করা হয়।

রিশান ফারাজী রিফাত হত্যা মামলার ৩ নম্বর আসামি।

বিজ্ঞাপন

মঙ্গলবার রাতে বরগুনার পুলিশ সুপার জানান, প্রাথমিক তদন্তে হত্যাকাণ্ডে জড়িত থাকার প্রমাণ পাওয়ায় মিন্নিকে গ্রেপ্তারের বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

গত ২৬ জুন সকাল সাড়ে ১০টার দিকে বরগুনা সরকারি কলেজের মূল ফটকের পাশে রিফাতকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে জখম করে কয়েকজন যুবক। সেসময় নানাভাবে নিজেকে রক্ষার চেষ্টা করেও বাঁচতে পারেনি রিফাত।

হামলায় গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে প্রথমে বরগুনা জেনারেল হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য রিফাতকে বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠান চিকিৎসাধীন অবস্থায় বিকেল ৪টার দিকে তার মৃত্যু হয়।

নিহত রিফাত বরগুনা সদর উপজেলার বুড়িরচর ইউনিয়নের মাইঠা-লবণগোলা এলাকার দুলাল শরীফের ছেলে।

ওই ঘটনার একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়। সেখানে দেখা যায় কয়েকজন যুবক রিফাতকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে একের পর আঘাত করছে। আর তাদের হাত থেকে স্বামীকে রক্ষার চেষ্টা করছেন রিফাতের স্ত্রী। তিনি চিৎকার করে সাহায্য চাচ্ছেন। কিন্তু কাউকে তাদেরকে সাহায্য করতে এগিয়ে আসতে দেখা যায়নি।

রিফাত শরীফকে কুপিয়ে হত্যার ঘটনায় ১২ জনের নাম উল্লেখ এবং অজ্ঞাত আরো কয়েকজনকে আসামি করে তার বাবা বাদি হয়ে মামলা করেন।

Bellow Post-Green View