চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

যেকোনো পরিস্থিতিতে উন্নয়ন অব্যাহত রাখার প্রত্যাশা প্রধানমন্ত্রীর

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, গত তিন
মাসের অস্থিতিশীল পরিস্থিতি থেকে উত্তরণ ঘটিয়ে উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখা হবে। বৃহস্পতিবার
বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয় পরিদর্শনে এসে ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ পৌঁছে
দেয়ার অঙ্গীকারও করেন তিনি।

প্রথম দফায় বিদ্যুৎ ও জ্বালানি মন্ত্রণালয়
পরিদর্শন করে বেশ কিছু নির্দেশনা ও পরিকল্পনা দিয়েছিলেন মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বে
থাকা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সেই সব কাজের কতখানি অগ্রগতি ও বাস্তবায়ন হয়েছে
দ্বিতীয়বার এসে তারই খোঁজখবর নেন তিনি।

একই সাথে তুলে ধরেন ২০২১ সাল নাগাদ বিদ্যুৎ
নিয়ে তার সরকারের পরিকল্পনা। বলেন, আমাদের শতভাগ মানুষ বিদ্যুৎ সুবিধা পাবে। এজন্য
বহুমূখী পরিকল্পনা করেছি। সোলার এনার্জিকে আমরা আরো বেশি কাজে লাগাতে চাই। স্থায়ী বিদ্যুৎ
কেন্দ্র নির্মাণের কাজও এগিয়ে চলছে। ভারত থেকে ৫০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ ক্রয় করেছি। আগরতলা
থেকে ১০০ মেগাওয়াট পাবো। হয়তো অল্প সময়ের মধ্যেই আমরা ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ পৌঁছে দিতে
পারবো।

গ্রামে নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবহার নিশ্চিত
করার নির্দেশ দিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, তারাই অর্থনীতির মূল চাবিকাঠি।

গত তিন মাসের আন্দোলনের নামে সহিংসতা
নিয়ে তিনি বলেন, ‘জ্বালাও পোড়াও করছে তারা। মানুষকে পুড়িয়ে মারার সাথে সাথে বিদ্যুৎকেন্দ্র
জ্বালিয়ে দিচ্ছে। এটা দেশের জন্য খুবই দুর্ভাগ্যের। দেশের স্বার্থে কেউ এমন
ধ্বংসাত্বক কাজ করতে পারে না। যে মানুষকে নিয়ে রাজনীতি তাদেরই যদি পুড়িয়ে মারা হয়
তাহলে সেটা কেমন রাজনীতি? আমরা আশা করি যে, আমরা এই অবস্থা থেকে উত্তোরণ ঘটিয়ে
আমাদের উন্নয়নের অগ্রযাত্রা অব্যাহত রাখতে পারবো।’  

এসময় বিদ্যুৎ ব্যবহারে সকলকে সাশ্রয়ী হতেও
আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

Advertisement