চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ম্যানসিটিকে থামানোই যাচ্ছে না

Nagod
Bkash July

পেপ গার্দিওলার সিটিজেনদের থামাতে পারছে না কেউই। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে শিরোপা ধরে রাখার মিশনে টানা ১২তম জয়ে ধরাশায়ী টেবিলের দুইয়ে থাকা চেলসি। ব্লুজদের থেকে ১৩ পয়েন্ট এগিয়ে বলতে গেলে ধরাছোঁয়ার বাইরে ম্যানসিটি।

Reneta June

শনিবার ইতিহাদ স্টেডিয়ামে টেবিলের শীর্ষের দল হিসেবেই পুরোটা সময় এগিয়ে ছিল সিটিজেনরা। তবে তেমন উত্তাপ ছড়াতে পারেনি। লড়াই জমাতে পারেনি ব্লুজরাও। শেষ পর্যন্ত ১-০ ব্যবধানে জয়য় পেয়ে পূর্ণ পয়েন্ট তুলেছে সিটি। একমাত্র গোলটি করেছেন কেভিন ডে ব্রুইনে।

ব্রুইনের দুর্দান্ত গোলে জয় পাওয়া সিটি আরও পোক্ত করেছে শীর্ষের স্থান। ২২ ম্যাচে ১৮ জয় আর দুটি করে হার ও ড্রয়ে ৫৬ পয়েন্ট নিয়ে সবার উপরে গার্দিওলার সিটি। ৪৩ পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে চেলসি। এক পয়েন্ট পিছিয়ে তিনে লিভারপুল।

ম্যাচের শুরু থেকে অধিকাংশ সময় বল দখলে রেখে আক্রমণ করতে থাকে। ৫৬ শতাংশ বল পায়ে রেখে ৯টি শট নেয় সিটি, লক্ষ্যে ৬টি। বিপরীতে মাত্র তিনটি শট নিতে পারে ব্লুজরা।

প্রথমার্ধ্বে দুর্দান্ত কয়েকটি আক্রমণ করে সিটি। তবে গোলে শট নিতে ব্যর্থ হচ্ছিল বারবার। ৩৯ মিনিটে এগিয়ে যাবার প্রথম সুযোগ আসে সিটির। জ্যাক গ্রিলিশের শট অবিশাস্য ভাবে রুখে দেন স্প্যানিশ গোলরক্ষক কেপা। ৪৩ মিনিটে ব্রুইনার শট গোলবারের উপর দিয়ে গিয়ে হতাশ করে সিটিকে।

বল দখল ও আক্রমণে এগিয়ে থাকলেও গোলশূন্য ড্র স্কোরলাইনে বিরতিতে যায় দুদল। বিরতির পর ৬৩তম মিনিটে কেভিন ডে ব্রুইনের ফ্রি কিকে লাফিয়ে রুখে দেন আরিসাবালাগা।

৭০ মিনিটে কাঙ্ক্ষিত গোলের দেখা পায় সিটি। বেলজিয়ামের মিডফিল্ডার ব্রুইনে ২০ গজ দূর থেকে জোরাল শটে গোলরক্ষককে পরাস্ত করেন। এটি সাবেক ক্লাব ব্লুজদের বিপক্ষে তার পঞ্চম গোল। আর সিটির হয়ে প্রিমিয়ার লিগে ২১তম গোল।

৮৩তম মিনিটে ব্যবধান বাড়ানো সুযোগ আসে ফিল ফোডেনের কাছে। উড়িয়ে মেরে হতাশ করেন এই মিডফিল্ডার। গত সেপ্টেম্বরে প্রথম দেখায় চেলসির মাঠে গাব্রিয়েল জেসুসের একমাত্র গোলে জিতেছিল সিটি। ম্যাচের ফলে এবারও ব্যতিক্রম হয়নি।

BSH
Bellow Post-Green View