চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

মোদির সফরের বিরুদ্ধে শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদ অব্যাহত থাকবে: হেফাজত

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী ও স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশ সফরের আমন্ত্রণপত্র বাতিলের জন্য সরকারের কাছে দাবি জানিয়ে হেফাজতে ইসলাম বলছে: মোদির সফরের বিরুদ্ধে রাজপথে সংঘাতমূলক কর্মসূচি না থাকলেও সংগঠনের পক্ষ থেকে শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদ কর্মসূচি অব্যাহত থাকবে।

সোমবার হেফাজতে ইসলামের ঢাকা মহানগর শাখার সভাপতি জুনায়েদ আল হাবিব সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

জুনায়েদ আল হাবিব বলেন: স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী ও মুজিববর্ষ উদযাপন উপলক্ষে সরকার বিভিন্ন ধরনের প্রোগ্রাম হাতে নিয়েছে। এসব প্রোগ্রামকে অতিথি হিসেবে বেশ কয়কজন রাষ্ট্রনেতা অংশগ্রহণ করছেন। অতিথিদের তালিকায় রয়েছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। এমন কাউকে বাংলাদেশে নিয়ে আসা উচিত হবে না বা যার আগমণ এদেশের মানুষকে আহত করবে।

তিনি বলেন: বাংলাদেশের স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীর এই গুরুত্বপূর্ণ আয়োজনে নরেন্দ্র মোদির মতো একজন ব্যক্তি আসুক এটা আমরা চাই না। আমরা দেশের অধিকাংশ মানুষের সেন্টিমেন্টের প্রতি সম্মান জানিয়ে বাংলাদেশ সরকারের নিকট নরেন্দ্র মোদির আমন্ত্রণ বাতিলের আহ্বান জানাই। নরেন্দ্র মোদির আগমণের বিরুদ্ধে আমাদের শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদ অব্যাহত থাকবে।

বিজ্ঞাপন

সংবাদ সম্মেলনে এক প্রশ্নের জবাবে ঢাকা মহানগরের মহাসচিব মাওলানা মামুনুল হক বলেন: আমরা শান্তিপূর্ণ কর্মসূচি অব্যাহত রেখেছি, আমরা শান্তিপূর্ণ কর্মসূচি পালন করব। রাজপথে আমাদের কোনো সংঘাতমূলক কর্মসূচি থাকবে না। পরিস্থিতি বিবেচনায় আমরা যেকোনো কর্মসূচি বিবেচনায় নেব।

তিনি বলেন: আমরা পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করব, এই মুহূর্তে কোনো কর্মসূচি ঘোষণা না করলেও পরিস্থিতির আলোকে হেফাজতে ইসলাম কেন্দ্রীয় কমিটির পরামর্শক্রমে যেকোনো কর্মসূচি ঘোষণা করতে পারি।

আগামী ২৬ মার্চ দুই দিনের সফরে বাংলাদেশে আসার কথা রয়েছে ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির।

নরেন্দ্র মোদি সর্বশেষ বাংলাদেশে এসেছিলেন ২০১৫ সালের জুন মাসে।

বিজ্ঞাপন