চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

মুশফিকের গ্লাভস কেড়ে নেয়া হচ্ছে না

সময়ের সেরাদের একজন ভাবা হয় এমন উইকেটরক্ষক নুরুল হাসান সোহান দলেই সুযোগ পান না। কিন্তু সময়ের অন্যতম সেরা কিপার লিটন দাস তো একাদশে নিয়মিত। তারও ওয়ানডেতে উইকেটের পেছনে দাঁড়ানো হয় না। কারণ, অভিজ্ঞ মুশফিকুর রহিম গ্লাভস হাতছাড়া করবেন না। সতীর্থের এমন নাছোড় মনোভাবে অবশ্য অখুশি নন তামিম ইকবাল।

বাংলাদেশের ওয়ানডে অধিনায়ক জানালেন, ‘ওর(মুশফিক) কিপিং নিয়ে আমি খুবই খুশি।’

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে রোববার মাঠে গড়াতে যাওয়া তিন ওয়ানডের সিরিজ সামনে রেখে শুক্রবার ভার্চুয়াল মাধ্যমে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়েছিলেন তামিম। টাইগারদের ওয়ানডে অধিনায়ককে সেখানে নানান প্রশ্নের মধ্যে পড়তে হয় উইকেটের পেছনে মুশফিকের আঁকড়ে থাকা নিয়েও।

বিজ্ঞাপন

মুশফিক দেশের অন্যতম সেরা ও ধারাবাহিক ব্যাটসম্যান। সিনিয়রদের একজন। গ্লাভস হাতে তার অবদানও উড়িয়ে দেয়ার মতো নয়। তিনি কিছু দৃষ্টিকটু ভুল তার দ্বারা হরহামেশাই হয়ে যাচ্ছে। যা দলকে বেশ ভোগাচ্ছেও!

তাই প্রশ্ন উঠে গেছে এখন যখন লিটনের মতো তরুণ রক্ত উইকেটের পেছনে রিফ্লেক্স দিতে প্রস্তুত, তখন মুশফিকের গ্লাভস আঁকড়ে থাকার জিদ দলের জন্য, টিম ম্যানেজমেন্টের জন্য চাপের কিনা।

দলনেতা তামিম অবশ্য অন্যভাবেই দেখছেন বিষয়টিকে, ‘ওর কিপিং নিয়ে আমি খুবই খুশি। ক্যাচ মিস বা সুযোগ মিস এগুলো খেলার অংশ, সত্যি কথা বলতে আমি জানি সে কতটা কঠোর পরিশ্রম করে। আর আমাদের টিম ম্যানেজমেন্ট বা সবার একটা মুহূর্তের জন্যও মনে হয় না যে মুশফিক কিপিং করবে না।’

‘সে অবশ্যই শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে প্রথম ওয়ানডেতে শুধু না, পুরো সিরিজেই কিপিং করবে। ক্যাচ মিসের কথা বলছেন, কিন্তু সে কিছু দুর্দান্ত কাজও করেছে। ১৩-১৪ বছর ধরে একজন কিপার ক্যাচ ফেলতে পারে আবার এই সময়ে সে কিছু অবিশ্বাস্য ক্যাচও ধরেছে। আমার মুশফিকের উপর পূর্ণ আস্থা আছে এবং সে কিপিং করবে।’

বিজ্ঞাপন